মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪

সেকশন

 

আরও তেল ও ডাল কিনছে সরকার

আপডেট : ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০৯:৩৫

আরও তেল ও ডাল কিনছে সরকার আসছে রমজান সামনে রেখে আরও ১ কোটি ১০ লাখ লিটার সয়াবিন তেল এবং ৮ হাজার টন ডাল কিনবে সরকার। এ জন্য মোট খরচ হবে ২৬৭ কোটি ৮৪ লাখ ৮০ হাজার ৩২০ টাকা। এর মধ্যে ১৯৪ কোটি ৫৬ লাখ ৮০ হাজার টাকার তেল ও ৭৩ কোটি ২৮ লাখ ৩২০ টাকার ডাল। গতকাল সচিবালয়ে কৃষিমন্ত্রী ড. আবদুর রাজ্জাকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে এ-সংক্রান্ত প্রস্তাবের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

বৈঠক সূত্র জানায়, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) কর্তৃক স্থানীয়ভাবে সরাসরি ক্রয় পদ্ধতিতে ১ কোটি ১০ লাখ লিটার সয়াবিন তেল ক্রয়ের অনুমোদন দিয়েছে সরকার। মেঘনা এডিবল ওয়েল রিফাইনারি লিমিটেডের কাছ থেকে ১৯৪ কোটি ৫৬ লাখ ৮০ হাজার টাকায় এ তেল কেনা হবে। প্রতি লিটার তেলের দাম পড়বে ১৭৬ টাকা ৮৮ পয়সা। যার আগের দাম ছিল ১৭৭ টাকার মতো। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অপর এক প্রস্তাবে টিসিবি কর্তৃক আন্তর্জাতিক উন্মুক্ত দরপত্র পদ্ধতিতে ৮ হাজার টন মসুর ডাল কেনারও অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। তুরস্কের আরবেল বাকলিয়াত হুবুবাত সান্তিক এএস কুমহুরিয়াত, বুলরেন্ট, নং ৭৩/৪, ৩৩২৮১, কাজনলি, মেরসিনের স্থানীয় এজেন্ট বিআইএনকিউয়ের কাছ থেকে ৭৩ কোটি ২৮ লাখ ৩২০ টাকায় এ ডাল কেনা হবে। প্রতি কেজি ডালের দাম পড়বে ৯১ টাকা ৬০ পয়সা।

বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব সাঈদ মাহবুব খান সাংবাদিকদের জানান, সভায় মোট ১৫টি অ্যাজেন্ডা ছিল, যার সব পাস হয়েছে। তার মধ্যে আটটি নৌ-পরিবহন মন্ত্রণালয়ের। বিদ্যুতের দুটি, বাণিজ্যের দুটি। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় ও সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয় ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের একটি করে।

এর আগে গত ১ ফেব্রুয়ারি টিসিবির জন্য ১ কোটি ১০ লাখ লিটার সয়াবিন তেল ক্রয় করার অনুমোদন দেওয়া হয়। এতে খরচ পড়ে ১৯৪ কোটি ৭০ লাখ টাকা।

তারও আগে গত ১৯ জানুয়ারি টিসিবির জন্য ১০ লাখ লিটার সয়াবিন তেল এবং ৮ হাজার টন ডাল কেনে সরকার। এতে মোট খরচ হয় ২৭৪ কোটি ১৬ লাখ ৯৬ হাজার ৮০০ টাকা।

জানা যায়, ফ্যামিলি বা পরিবার কার্ডের আওতায় একজন কার্ডধারীর কাছে সর্বোচ্চ দুই লিটার সয়াবিন তেল, দুই কেজি মসুর ডাল, এক কেজি চিনি ও দুই কেজি পেঁয়াজ বিক্রি করছে টিসিবি। প্রতি লিটার সয়াবিন তেল ১১০ টাকা, প্রতি কেজি চিনি ৫৫ টাকা, ১ কেজি মসুর ডাল ৬৫ টাকা ও প্রতি কেজি পেঁয়াজ ২০ টাকা দরে বিক্রি করা হচ্ছে। নানা কারণে প্রায় এক বছর ধরে নিত্যপণ্যের দাম লাগামহীন বাড়ার ফলে সাধারণ মানুষ বেশ ভোগান্তিতে রয়েছে। এ অবস্থায় বাজার সহনীয় রাখতে সরকার টিসিবির মাধ্যমে সুলভ মূল্যে কয়েকটি নিত্যপণ্য বিক্রি করে আসছে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     

    বাড়তি বিলের বিড়ম্বনা

    নিবন্ধন ছাড়াই চলছে রাজধানীর বড় বড় হাসপাতাল

    সরকার কি সিএনজিকে বিদায় জানাতে চায়

    ‘কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না’

    বাজেট ২০২৪-২৫

    শুধু কি গতানুগতিক বক্তৃতাই হবে

    সীমান্তে চিনি চোরাচালানে সিলেট ছাত্রলীগ

    ‘বিপদে’ সাহায্য চাওয়া অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশকে ডাকে না ১৬ বছর

    প্রভাসে আশায় বুক বাঁধছে ভারতীয় বক্স অফিস 

    আশ্রয়ণের ঘর বরাদ্দ আছে, পরিবার নেই

    অবশেষে কারামুক্ত হলেন উইকিলিকসের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ