বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪

সেকশন

 
প্রাক–বাজেট আলোচনা

সিগারেটের কর ৩৩% পর্যন্ত বাড়ানো প্রস্তাব

আপডেট : ২২ মার্চ ২০২৪, ০৯:৫৭

উন্নয়ন সমন্বয়ের প্রাক্‌-বাজেট আলোচনা সভায় অতিথিরা। গতকাল রাজধানীর বাংলামোটরে বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের ইসফেনদিয়ার জাহেদ হাসান মিলনায়তনে। ছবি: আজকের পত্রিকা সিগারেট তথা তামাকজাত দ্রব্যের ওপর কর আরও বাড়ানো হলে তা ব্যবহারে মানুষকে নিরুৎসাহিত করবে। তাই আসছে অর্থবছরের বাজেটে সিগারেটের ওপর করারোপ অব্যাহত রাখার আহ্বান জানানো হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিশ্ব সাহিত্যকেন্দ্রে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় বক্তারা এই আহ্বান জানান।

বেসরকারি সংস্থা উন্নয়ন সমন্বয় আয়োজিত প্রাক্‌-বাজেট আলোচনায় সভায় নিম্ন, মধ্যম, উচ্চ ও প্রিমিয়াম স্তরের সিগারেটের খুচরা মূল্য যথাক্রমে ৩৩ শতাংশ, ১৯ শতাংশ, ১৫ শতাংশ এবং ১৩ শতাংশ বাড়ানোর প্রস্তাব দেওয়া হয়। এ ছাড়া কয়েকটি তামাকবিরোধী সংগঠনের পক্ষে সিগারেটে কার্যকর কর আরোপের প্রস্তাব উপস্থাপন করেন উন্নয়ন সমন্বয়ের গবেষণা পরিচালক আব্দুল্লাহ নাদভী। 

আলোচনা সভায় সাবেক প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার বলেন, তামাকের তিনটি পক্ষ রয়েছে—উৎপাদনকারী, ব্যবসায়ী ও ব্যবহারকারী। এই তিন পক্ষকেই নিরুৎসাহিত করতে হবে।

সাবেক প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেন, যত্রতত্র তামাক উৎপাদন নিয়ন্ত্রণে সুনির্দিষ্ট আইন করে জরিমানার আওতায় আনতে হবে। ‘নো স্মোকিং জোন’-এর পরিধি আরও বাড়াতে হবে। তামাক ব্যবহারের কুফল জানাতে সমাজের বিশ্বাসযোগ্য ব্যক্তিদের সামনে আনতে হবে। 

সমাপনী বক্তব্যে ড. আতিউর রহমান বলেন, সিগারেটে কার্যকর করারোপই এই ক্ষতিকারক পণ্যের ব্যবহার কমিয়ে আনার সবচেয়ে কার্যকর উপায়। এ কারণেই দেশের তামাকবিরোধী নাগরিক সংগঠনগুলো সিগারেটে কার্যকর করারোপের পক্ষ অবস্থান নিয়েছে। 

আরও বক্তব্য দেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. এম আবু ইউসুফ, ড. মুহাম্মদ শাহাদত হোসেন সিদ্দিকী, সংসদ সদস্য জান্নাত আরা হেনরি, নাজমা আক্তার প্রমুখ। 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     

    কোটিপতি কমলেও ক্ষুদ্র হিসাব বেড়েছে

    চামড়াশিল্প নগরীর সিইটিপি পুরো প্রস্তুত, পরিদর্শন শেষে শিল্পসচিব

    হঠাৎ লেনদেন কমেছে মোবাইল ব্যাংকিংয়ে

    ভারত মহাসাগরে কোবাল্ট আহরণে দিল্লিকে তাড়া করছে চীনভীতি 

    বাংলাদেশিদের ক্রেডিট কার্ডে খরচ ভারতে সবচেয়ে বেশি

    ভারতের নিষেধাজ্ঞার মধ্যে চাল রপ্তানিতে পাকিস্তানের রেকর্ড

    বন্ধুর গোপনাঙ্গ কেটে নিজেরও কাটলেন তরুণ, হাসপাতালে মৃত্যু

    এবারও কি চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা নাকি অন্য কেউ

    বিদেশি ফলে ভরছে দেশের মাঠ, ৫টির চাষ সবচেয়ে বেশি

    বাংলাদেশের সুপার এইটের ম্যাচ দেখবেন কোথায় 

    রোহিঙ্গাদের কারণে এনআইডি পেতে ৩২ উপজেলার মানুষের ভোগান্তি

    রাজধানীতে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২