বৃহস্পতিবার, ০৮ জুন ২০২৩

সেকশন

 

এ বছর কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনায় ৭১২ শ্রমিকের মৃত্যু: সেফটি অ্যান্ড রাইটস

আপডেট : ৩১ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩:১৬

কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনায় গত এক বছরে সারা দেশে ৭১২ শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। ছবি: সংগৃহীত  কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনায় গত এক বছরে (জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর) সারা দেশে ৭১২ শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। ৫৪৭টি দুর্ঘটনায় এসব মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। ২০২১ সালে একই সময়ে সারা দেশে ৩৯৯টি কর্মক্ষেত্র দুর্ঘটনায় ৫৩৮ জন শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছিল। ২০২১ সালের তুলনায় ২০২২ সালে কর্মক্ষেত্র দুর্ঘটনায় মৃত্যু বেড়েছে ১৭৪ জনের, দুর্ঘটনা বেড়েছে ১৪৮ টি।

আজ শনিবার বিকেলে বেসরকারি সংস্থা সেফটি অ্যান্ড রাইটস সোসাইটি (এসআরএস) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে। সংস্থাটি স্থানীয় ও জাতীয় মোট ২৬টি গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের ওপর জরিপ পরিচালনা করে এ ফলাফল প্রকাশ করেছে।

এসআরএস নির্বাহী পরিচালক সেকেন্দার আলী মিনা বলেন, ‘যেসব শ্রমিক কর্মক্ষেত্রের বাইরে অথবা কর্মক্ষেত্র থেকে আসা-যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় অথবা অন্য কোনো কারণে মারা গেছেন তাঁদের এই জরিপে অন্তর্ভুক্ত করা হয়নি।’

জরিপে তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, সবচেয়ে বেশি শ্রমিক নিহত হয়েছে পরিবহন খাতে। যাদের সংখ্যা মোট ৩৩৩ জন। এরপরেই রয়েছে সেবামূলক প্রতিষ্ঠানে (যেমন-ওয়ার্কশপ, গ্যাস, বিদ্যুৎ সরবরাহ প্রতিষ্ঠান ইত্যাদি) ১৭০ জন, নির্মাণখাতে ১০৪ জন, কৃষিখাতে ৬২ জন এবং কল-কারখানা ও অন্যান্য উৎপাদনশীল প্রতিষ্ঠানে এই সংখ্যা ৪৩ জন।

মৃত্যুর কারণ পর্যালোচনা করে দেখা যায়, সড়ক দুর্ঘটনায় ৩৫৩ জন, বিস্ফোরণে ৮৪ জন, বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ৬৯ জন, বজ্রপাতে ৫৭ জন, মাচা বা ওপর থেকে পড়ে মারা গেছে ৪৫ জন, শক্ত বা ভারী কোনো বস্তুর দ্বারা আঘাত বা তার নিচে চাপা পড়ে ৩৮ জন, পানিতে ডুবে ২৪ জন, আগুনে পুড়ে ১৪, রাসায়নিক দ্রব্য বা সেপটিক ট্যাংক বা পানির ট্যাংকের বিষাক্ত গ্যাসে আক্রান্ত হয়ে ১৪ জন, পাহাড় বা মাটি, ব্রিজ, ভবন বা ছাদ, দেয়াল ধসে ১৩ জন এবং অন্যান্য কারণে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

কর্মক্ষেত্র দুর্ঘটনা কমাতে এসআরএস কিছু সুপারিশের কথা জানিয়েছেন। তা হচ্ছে প্রত্যেকটি সেক্টরে গুরুত্বের সঙ্গে নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে। কেমিক্যাল সংরক্ষণ, পরিবহন ও ব্যবহারে আরও বেশি সতর্ক হতে হবে। কর্মক্ষেত্র দুর্ঘটনা নিয়ন্ত্রণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নজরদারি আরও বাড়াতে হবে। কারখানা ও প্রতিষ্ঠান ভিত্তিক নিরাপত্তা নির্দেশনা প্রণয়ন, ঝুঁকি নিরূপণসহ দুর্ঘটনার মূল কারণ চিহ্নিত করে তা কীভাবে কমিয়ে আনা যায় সে ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে শিগগিরই ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
     

    ডেঙ্গুতে আরও ২ জনের মৃত্যু, হাসপাতালে ১৪৭

    করোনায় আরও একজনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৯৭

    দেশে ডেঙ্গুতে এক দিনে ৩ জনের মৃত্যু

    সংসদ সদস্য আফসারুল মারা গেছেন

    ৬৬ দিন পর করোনায় ২ জনের মৃত্যু

    নায়ক ফারুকের আসনে উপনির্বাচন ১৭ জুলাই

    সিদ্ধিরগঞ্জে পোশাক কারখানায় আগুন, নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ৪ ইউনিট 

    এনআইডির তথ্যভান্ডার ‘ঝুঁকি’তে

    দক্ষিণখানে পৃথক অভিযানে মাদকসহ গ্রেপ্তার ৩

    বিজ্ঞানীদের অবাক করে ছানার জন্ম দিল এক কুমারী কুমির

    ককটেল ফাটিয়ে জুয়েলারি দোকানে ডাকাতি, পালানোর সময় পিকআপ চাপায় নিহত ১ 

    বিদ্যুৎ–মূল্যস্ফীতি মানুষকে ভোগাচ্ছে, পদক্ষেপ নিচ্ছে সরকার: পরিকল্পনামন্ত্রী