সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪

সেকশন

 

পুরোনো ফোন কেনার সময় যে ৫টি বিষয় যাচাই জরুরি

আপডেট : ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২২:৩৬

ছবি: আনস্প্ল্যাশের সৌজন্যে ওয়েবসাইট বা ফেসবুক মার্কেটপ্লেসে পুরোনো ফোন কেনাবেচা বাড়ছে। তবে এ ধরনের ফোন কেনার ক্ষেত্রে ক্রেতাকে বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। ফোন কেনার সময় মালিকানা নথিসহ বেশ কিছু বিষয় যাচাই না করলে পরে সমস্যা হতে পারে।

পুরোনো ফোন কেনার সময় যে সব বিষয়ে নজর রাখতে হবে তা তুলে ধরা হল—

ফোনের কাগজপত্র আছে কি না দেখুন
যার থেকে ফোনটি কেনা হচ্ছে, তিনিই ফোনটির আসল মালিক কি না তা নিশ্চিত হওয়া জরুরি। অনেক সময় চুরি করা ফোন বিক্রির বিজ্ঞাপনও অনেকে দিয়ে থাকে। এ ধরনের ফোন কিনলে আইনি জটিলতার মুখোমুখি হতে হবে ক্রেতাকে। ফোন কেনার সময় অবশ্যই ফোনটি কেনার রশিদ দেখতে চাইতে হবে। অনেক সময় ভুয়া রশিদও অনেকে বানিয়ে নেন। এ ক্ষেত্রে, বাড়তি সতর্কতা হিসেবে ফোনের আসল বাক্স সঙ্গে আছে কি না দেখে নিবেন। অবশ্যই বাক্সের গায়ে লেখা আইএমইআই নম্বরের সঙ্গে ফোনের আইএমইআই মিলিয়ে নেবেন।   

আইএমইআই চেক করুন
ফোনের আইএমইআই নম্বর পরীক্ষা করা ফোন কেনার পুর্বে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি কাজ। আইএমইআই (ইন্টারন্যাশনাল মোবাইল ইক্যুইপমেন্ট আইডেনটিটি) নম্বর জানতে ‘*#০৬#’- এ ডায়াল করুন। ডায়ালের পর পর্দায় ১৫ সংখ্যার একটা নম্বর দেখা যাবে। এটিই মোবাইলের আইএমইআই নম্বর। IMEIdetective.com এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে আইএমইআই নম্বর ইনপুট করলে ফোন সম্পর্কে অতিরিক্ত তথ্য পাওয়া যাবে। 

আইফোন কেনার ক্ষেত্রে একটু বিশেষ সতর্ক থাকা প্রয়োজন। প্রথমে আইফোনের প্যাকেজিং ভালোভাবে চেক করা জরুরি। আইফোনের বাক্সে মডেল নম্বর, সিরিয়াল নম্বর এবং আইএমইআই নম্বর রয়েছে। আইফোনের ‘জেনারেল’ থেকে ‘অ্যাবাউট’ অপশনে গিয়ে আইএমইআই নম্বর মিলিয়ে নিতে হবে। নম্বরটি না মিললে বুঝতে হবে আইফোনটি নকল।

নকল আইফোন চেনার আরেকটি কার্যকর উপায় হচ্ছে এর সিরিয়াল নম্বর দেখা। সিরিয়াল নম্বর চেক করতে: https://checkcoverage.apple.com–এ লিংকে প্রবেশ করতে হবে। এই ওয়েবসাইটে আইফোনের সিরিয়াল নম্বর ইনপুট দিলে ফোনটির মডেল, বিক্রয়োত্তর সেবার মেয়াদসহ ফোনসম্পর্কিত যাবতীয় তথ্য দেখাবে। যদি কিছু না আসে, তাহলে বুঝতে হবে আইফোনটি নকল।

হার্ডওয়্যার পরীক্ষা করে দেখুন 
পুরোনো মোবাইল ফোন কেনার আগে ফোনের হার্ডওয়্যার ঠিকঠাক আছে কি না তা দেখে নেওয়া জরুরি। ফোনের বহিরাংশে কোনো প্রকারে দাগ, ফাটা ইত্যাদি আছে কিনা তা দেখে নিন। অনেক সময় দেখা যায় হাত থেকে পড়ে ফোনে দাগ বা ফাটা স্থানের সৃষ্টি হয়। এতে করে ফোনের ভেতরেই সমস্যার সম্ভাবনা থেকে যায়। প্রয়োজনে কোনো ফোন মেরামতের দোকানে গিয়ে ফোন খুলে পরীক্ষা করাতে পারেন।

সুযোগ থাকলে ল্যাপটপের সঙ্গে ইউএসবি কেবল লাগিয়ে তথ্য স্থানান্তর ও চার্জিং এর ক্ষেত্রে সমস্যা আছে কিনা তা ভালো মতো দেখে নেওয়া উচিৎ। এ ছাড়া নেটওয়ার্ক পরীক্ষার পাশাপাশি ব্রাউজিং, অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড সহ ছবি ও ভিডিও ঠিকমতো কাজ করছে কিনা তা দেখে নেওয়া জরুরি। 

অনলাইনে দাম যাচাই করে নিন
বিজ্ঞাপনের সাইট গুলোতে একটু ঘাঁটাঘাঁটি করলেই পুরোনো ফোনের দাম সম্পর্কে মোটামুটি ধারণা পাওয়া যাবে। এ ছাড়া, ব্র্যান্ডের ওয়েবসাইটে ফোনটির বর্তমান দাম দেখেও পুরনো ফোনের দাম সম্পর্কে ভালো ধারণা পাওয়া যাবে। দাম নির্ধারণের ক্ষেত্রে ফোনটি কতদিন ব্যবহার করা হয়েছে, কি অবস্থায় আছে- এগুলো বিবেচনা করতে হবে।  

ওয়ারেন্টি আছে এমন ফোন কেনা ভালো
ওয়ারেন্টি আছে এমন ফোন কেনা বুদ্ধিমানের কাজ। এতে করে ফোনে কোনো প্রকারের সমস্যা দেখা গেলেও তা নির্দিষ্ট এবং  নির্ভরযোগ্য সার্ভিসিং সেন্টারে মেরামতের সুযোগ থাকে। ফলে, ফোনটি নষ্ট হওয়ার ঝুঁকিও কমে আসে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
    রয়টার্স

    সংবাদে এআই ব্যবহার নিয়ে আস্থার সংকটে বেশির ভাগ পাঠক-দর্শক

    ওয়েবপেজের টেক্সট বাংলায় পড়ে শোনাবে গুগল ক্রোম 

    যেসব উপায়ে চ্যাটিজিপিটিতে ফাইল আপলোড করবেন 

    প্রোগ্রামিংয়ে দ্রুতবর্ধনশীল দেশের তালিকার শীর্ষে বাংলাদেশ

    ভারতে স্যাটেলাইট ইন্টারনেট সেবায় আম্বানির পেছনে পড়লেন মাস্ক ও বেজোস

    হোয়াটসঅ্যাপ ভিডিও কলে যে তিনটি ফিচার যুক্ত হল

    পাটকেলঘাটায় বিদ্যুতায়িত হয়ে শ্রমিক নেতার মৃত্যু 

    সাবধানে মাংস কাটাকাটি করতে অনুরোধ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

    ‘বাড়ি বদলেছি ২১ বার, ভাঙন দেখতে দেখতে চুল সাদা হয়ে গেল’

    আগামীকালের মধ্যে কোরবানি শেষ করার আহ্বান মেয়র আতিকের

    খাবারে ব্লেড পাওয়া যাত্রীকে অফার দিয়ে শান্ত করতে চাইল এয়ার ইন্ডিয়া