মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪

সেকশন

 

স্বৈরাচারীর কন্যা যেভাবে কোটিপতি হলেন

আপডেট : ১৩ মার্চ ২০২৩, ১২:৫৮

গুলনারা কারিমোভা। ছবি: এএফপি গুলনারা কারিমোভার অনেক পরিচয়। তিনি পপ তারকা, কূটনীতিক ও স্বৈরশাসকের কন্যা। তাঁর আরেকটি পরিচয় হচ্ছে—‘কোটিপতি’। ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি বলেছে, উজবেকিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্টের মেয়ে গুলনারা কারিমোভা লন্ডন থেকে হংকং পর্যন্ত ২৪ কোটি ডলারের সাম্রাজ্য গড়ে তুলেছেন।

গুলনারা কারিমোভার সম্পদ নিয়ে অস্ট্রেলিয়াভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থা ফ্রিডম ফর ইউরেশিয়া একটি গবেষণা চালিয়েছে। সেই গবেষণার বরাত দিয়ে বিবিসি বলেছে, ঘুষ ও দুর্নীতির মাধ্যমে বিপুল সম্পদ গড়েছেন গুলনারা। তিনি একটি উড়োজাহাজ ও বাড়ি কেনার জন্য যুক্তরাজ্যের দুটি কোম্পানিকে বড় অঙ্কের টাকা দিয়েছিলেন। ওই দুটি কোম্পানিকে টাকা দেওয়ার চুক্তির সঙ্গে লন্ডন ও ভার্জিন দ্বীপপুঞ্জের অ্যাকাউন্টিং ফার্মগুলোও যুক্ত ছিল বলে দাবি করেছে ফ্রিডম ফর ইউরেশিয়া।

 ১৯৮৯ থেকে ২০১৬ সালে মৃত্যুর আগ পর্যন্ত উজবেকিস্তানের প্রেসিডেন্ট ছিলেন ইসলাম কারিমভ। তাঁর কন্যা গুলনারা কারিমোভা বাবার উত্তরসূরি হিসেবে প্রেসিডেন্ট হবেন—এমনটাই ধারণা করেছিল সবাই। কিন্তু তিনি সেই পথে না গিয়ে পপ তারকা হয়েছেন, গুগুশা নামের মঞ্চে গেয়েছেন, জুয়েলারি কোম্পানি চালিয়েছেন এবং স্পেনে রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

 ২০১৪ সালে হঠাৎ করেই লোকচক্ষুর অন্তরালে চলে গিয়েছিলেন গুলনারা। তখন তাঁর বাবা ক্ষমতায়, তবু তাঁকে দুর্নীতির অভিযোগে আটক করা হয়েছিল। ২০১৭ সালে তাঁকে গৃহবন্দিত্বের সাজা দেওয়া হয়। পরে ২০১৯ সালে গৃহবন্দিত্বের শর্ত ভাঙার অভিযোগে তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়েছিল।

সেই গুলনারা কারিমোভার ব্যাপারে এখন আইনজীবীরা বলছেন, যুক্তরাজ্য, রাশিয়া, সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ ১২টি দেশে ১০০ কোটির বেশি সম্পদ নিয়ন্ত্রণ করে এমন অপরাধী গোষ্ঠীর সঙ্গে যোগসাজশ রয়েছে গুলনারা কারিমোভার। ফ্রিডম ফর ইউরেশিয়ার গবেষক ও অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা ফেলো টম মেন বলেছেন, ‘কারিমোভার এই ঘটনা সর্বকালের সবচেয়ে বড় ঘুষ ও দুর্নীতির ঘটনার একটি।’

গুলনারা ঘুষ ও দুর্নীতির মাধ্যমে অর্জিত সম্পদের কিছু অংশ বিক্রিও করে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন আইনজীবীরা।

ফ্রিডম ফর ইউরেশিয়া বলেছে, তারা যুক্তরাজ্য, সুইজারল্যান্ড, ফ্রান্স, দুবাই, হংকংসহ আরও বেশ কয়েকটি দেশে কারিমোভার ১৪টি সম্পত্তি শনাক্ত করেছে এবং জমির রেজিস্ট্রি রেকর্ড নিয়ে গবেষণা করেছে।

লন্ডনের আশপাশে পাঁচটি সম্পত্তি রয়েছে গুলনারা কারিমোভার, যার আনুমানিক মূল্য পাঁচ কোটি পাউন্ড। বাকিংহাম প্যালেসের ঠিক পশ্চিমে তিনটি ফ্ল্যাটসহ একটি বাড়ি রয়েছে তাঁর। মে ফেয়ার লেকের পাশে তাঁর একটি বাড়ি রয়েছে, যার আনুমানিক মূল্য ১ কোটি ৮০ লাখ পাউন্ড।

ফ্রিডম ফর ইউরেশিয়ার প্রতিবেদনে করিমোভার বয়ফ্রেন্ড রুস্তম মাদুমারভকেও অভিযুক্ত করা হয়েছে। তিনি কারিমোভার প্রক্সি হিসেবে কাজ করেছিলেন এবং যুক্তরাজ্যভিত্তিক কোম্পানিগুলোতে কয়েক লাখ ডলার পাচারে সহায়তা করেছিলেন।

মানবাধিকার সংস্থাটি বলেছে, যুক্তরাজ্যভিত্তিক দুটি কোম্পানি প্যানালি লিমিটেড এবং ওডেনটন ম্যানেজমেন্ট লিমিটেডকে গুলনারা কারিমোভা অর্থ দিয়েছিলেন। এ কাজে তিনি পূর্ব লন্ডনের ফার্ম এসএইচ ল্যান্ডস এলএলপিকে ব্যবহার করেছিলেন। 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     

    জাপান সফরের যাত্রাপথে প্লেন বিড়ম্বনায় নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী

    ঈদের দিনে যুদ্ধবিরতি নিয়ে যে অবস্থান জানালেন হামাসপ্রধান 

    ফ্রিজে গরুর মাংস পেয়ে ১১ মুসলিমের বাড়ি ভাঙল মধ্যপ্রদেশের পুলিশ

    কী ঘটেছিল তালেবানদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানো সেই নারীদের ভাগ্যে

    ইউক্রেন যুদ্ধে রাশিয়ার হয়ে লড়ছে ৭ লাখ সেনা, জানালেন পুতিন

    রামাফোসাই প্রেসিডেন্ট, জোট করে ক্ষমতায় ম্যান্ডেলার দল

    রোনালদোদের ম্যাচ কোথায় দেখবেন

    ছাগলের চামড়ার ‘নামমাত্র’ মূল্য, পড়ে আছে বাগানে

    রায়বেরেলি রেখে ওয়েনাড ছাড়ছেন রাহুল, প্রিয়াঙ্কাকে সংসদে আনার তোড়জোড়

    জুরাইনে কোরবানির গরুর মাংস বিক্রির হাট

    জাপান সফরের যাত্রাপথে প্লেন বিড়ম্বনায় নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী

    সখীপুরে নিখোঁজের ১ দিন পর গৃহবধূর লাশ মিলল পুকুরে