Alexa
শনিবার, ২২ জানুয়ারি ২০২২

সেকশন

epaper
 

চীনের বিআরআইকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ৩৪ হাজার কোটি ডলারের পরিকল্পনা ইইউর

আপডেট : ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০০:৪৫

চীনের বেল্ট অ্যান্ড রোড ইনিশিয়েটিভকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ৩৪ হাজার কোটি ডলারের বৈশ্বিক বিনিয়োগ পরিকল্পনা প্রকাশ করেছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। ছবি: রয়টার্স চীনের বেল্ট অ্যান্ড রোড ইনিশিয়েটিভকে (বিআরআই) চ্যালেঞ্জ জানাতে ২৫ হাজার ৫০০ কোটি ইউরোর (৩৪ হাজার কোটি ডলার) বৈশ্বিক বিনিয়োগ পরিকল্পনা প্রকাশ করেছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। ইউরোপের এই জোট একে বলছে চীনের বিআরআইয়ের ‘সত্যিকারের বিকল্প’। 

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গ্লোবাল গেটওয়ে স্কিম নামের এই বিনিয়োগ পরিকল্পনা নিয়ে বেশ আশাবাদী ইইউ। ইউরোপীয় কমিশনের প্রেসিডেন্ট উরসুলা ভন ডার লিয়েন বলছেন, এটি একটি বিশ্বস্ত ব্র্যান্ড হয়ে উঠবে। 

চীন তাদের বিআরআই প্রকল্প নিয়ে অনেক আগে থেকেই কাজ শুরু করেছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে চীন রেল, সড়ক, বন্দর ইত্যাদি খাতে বিনিয়োগ করছে। এ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে বাণিজ্য সঙ্গী হিসেবে দেশগুলোকে নিজের সঙ্গে জড়িয়ে নিচ্ছে বেইজিং। যদিও চীনের বিরুদ্ধে অভিযোগ আছে, এর মাধ্যমে ঋণের জালে বিভিন্ন দেশকে জড়িয়ে ফেলছে তারা। 

গ্লোবাল গেটওয়ে সম্পর্কিত ঘোষণায় ইসি প্রেসিডেন্ট বলেছেন, বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়নে দেশগুলোর এমন এক অংশীদার দরকার, যারা টেকসই অগ্রগতি এনে দিতে পারবে। 

এখন ইইউ এই পরিকল্পনায় ঘোষিত অর্থ সংস্থানের পথ নিয়ে ভাবছে। এ ক্ষেত্রে বিভিন্ন সদস্য দেশের কাছ থেকে যেমন, তেমনি আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বেসরকারি খাত থেকেও অর্থপ্রবাহের আশা করছে জোটটি। আর বিভিন্ন দেশে এই তহবিল থেকে ঋণ দেওয়া হবে; অনুদান নয়। 

ভন ডার লিয়েন বলেন, উন্নয়নশীল দেশগুলোতে জলবায়ু পরিবর্তন, নিরাপত্তা ইত্যাদি বিষয় বিবেচনায় রেখে টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্যে গণতান্ত্রিক পন্থায় বিভিন্ন প্রকল্পে বিনিয়োগ করা সম্ভব। প্রকল্পগুলো হতে হবে উচ্চমানের, যেখানে থাকবে উচ্চ মাথার স্বচ্ছতা ও সুশাসনের নিশ্চয়তা। যেসব দেশ এর সঙ্গে যুক্ত হবে, তারা যেন এর যথাযথ সুফল পায়, সেদিকেও খেয়াল রাখা হবে। 

কারা এর লক্ষ্য হবে? ইইউর এক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বিবিসি জানায়, আফ্রিকা নিশ্চিতভাবে এই তহবিলের অন্যতম গন্তব্য হিসেবে বিবেচিত হবে। 

বলা প্রয়োজন, আফ্রিকা, এশিয়া অঞ্চলে চীনও বিনিয়োগ করেছে ব্যাপকভাবে। ইইউও একই দিকেই নজর রেখেছে। ফলে এ ক্ষেত্রে আরেক দ্বৈরথ সামনে হাজির হচ্ছে বলা যায়।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
     

    ইউক্রেনে ‘মারণাস্ত্র সহায়তা’ পাঠালো যুক্তরাষ্ট্র 

    সিদ্ধান্ত ছাড়াই শেষ ব্লিঙ্কেন-ল্যাভরভ বৈঠক

    ভারতীয় কিশোরকে অপহরণের অভিযোগ চীনা সেনার বিরুদ্ধে

    ইউক্রেনে রাশিয়ান আগ্রাসন রুখতে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা জারি রাখবে যুক্তরাষ্ট্র

    বরিস জনসনকে ‘ঈশ্বরের নাম নিয়ে বিদায়’ হতে বললেন ব্রিটিশ এমপি

    স্বেচ্ছায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে শিল্পীর মৃত্যু

    শাবিপ্রবির আন্দোলনে অন্য কারও ইন্ধন দেখছেন শিক্ষামন্ত্রী

    পুলিশি অ্যাকশন দুঃখজনক, আলোচনার আহ্বান শিক্ষামন্ত্রীর

    লোহাগাড়ায় টমেটোবাহী ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে, নিহত ২ 

    রাজধানীতে যুবকের অস্বাভাবিক মৃত্যু

    রূপগঞ্জে যমুনা টেলিভিশনের গাড়িতে হামলা, সাংবাদিককে মারধর

    প্রথম নাসিক নির্বাচনের আগে পদত্যাগ করতে চেয়েছিলেন ৩ নির্বাচন কমিশনার