Alexa
বৃহস্পতিবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১

সেকশন

 

চাকরির জন্য যৌতুকের টাকা না দেওয়া অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে মারধর

আপডেট : ২৮ অক্টোবর ২০২১, ১৬:১০

প্রতীকী ছবি সরকারি চাকরির জন্য ৭ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে না পাওয়া স্বামীর বিরুদ্ধে অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী মারধরের অভিযোগ উঠেছে। পুলিশ অন্তঃসত্ত্বা মাকসুদাকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। গত বুধবার সন্ধ্যায় আমতলী উপজেলার উত্তর টিয়াখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

অভিযুক্ত স্বামীর নাম কাইয়ুম ইসলাম। উত্তর টিয়াখালী গ্রামের নাশির হাওলাদারের ছেলে এবং পটুয়াখালী বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স পড়েন। স্ত্রী মকসুদা আড়পাঙ্গাশিয়া গ্রামের মো. মতিউর রহমানের মেয়ে। 

জানা যায়, ২০১৬ মাসের মার্চ মাসে মাকসুদার সঙ্গে কাইয়ুমের বিয়ে হয়। বিয়ের সময় শ্বশুর জামাতাকে দেড় ভরি স্বর্ণালংকার, নগদ ৫০ হাজার টাকাসহ প্রয়োজনীয় আসবাবপত্র দেন। কিন্তু এতে তুষ্ট নন জামাতা কাইয়ুম। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের দাবিতে প্রায়ই মাকসুদাকে মারধর করে আসছেন তিনি। গত তিন মাস পূর্বে স্বামী কাইয়ুম স্ত্রী মাকসুদার কাছে সরকারি চাকরির জন্য ৭ লাখ টাকা প্রয়োজন বলে যৌতুক দাবি করেন। কিন্তু এ টাকা দিতে অস্বীকার করে মাকসুদা ও তাঁর বাবা মতিউর রহমান। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে কাইয়ুম তাঁর মা শিরিনা বেগম ও বোন তাইরিনের কু-পরামর্শে বাড়ি থেকে তাঁকে তাড়িয়ে দেন। এরপর থেকে মাকসুদা তাঁর বাবার বাড়িতে অবস্থান করছেন। 

গত বুধবার সন্ধ্যায় কাইয়ুম মাকসুদার কাছে পুনরায় চাকরির জন্য যৌতুকের টাকা দাবি করেন। এ টাকা দিতে অস্বীকার করায় চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী মাসকুদাকে বেধড়ক মারধর করেন। মারধরে তাঁর নাক মুখমণ্ডলসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম হয়। স্বামীর নির্যাতন সহ্য করতে না পেয়ে মাকসুদা ৯৯৯ ফোন দেন। তাৎক্ষণিক পুলিশ গিয়ে তাঁকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। 

বৃহস্পতিবার আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের লেবার ওয়ার্ডে গিয়ে দেখা যায়, মাকসুদা শরীরের অসহনীয় যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছেন। 

অন্তঃসত্ত্বা মাকসুদা কান্নাজনিত কণ্ঠে বলেন, ‘সরকারি চাকরির জন্য আমার স্বামীর ৭ লাখ টাকা প্রয়োজন। ওই টাকা আমার বাবার কাছে যৌতুক দাবি করেন। আমার বাবা এত টাকা দিতে অস্বীকার করায় আমাকে তিন মাস পূর্বে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দিয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় ওই টাকার জন্য আমার বাবার বাড়িতে আসে। আমি টাকা দিতে অস্বীকার করায় আমাকে বেধড়ক মারধর করে। বিয়ের পর থেকেই শাশুড়ি ও ননদের কুপরামর্শে যৌতুক দাবিতে আমাকে মারধর করে আসছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।’

স্বামী কাইয়ুম ইসলাম যৌতুক দাবির কথা অস্বীকার করে বলেন, সামান্য বিষয় নিয়ে কথা-কাটাকাটি এক পর্যায় দু-একটি কিল ঘুষি দিয়েছি। 

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উপ-সহকারী মেডিকেল অফিসার মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, অন্তঃসত্ত্বা মাকসুদার শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখমের চিহ্ন রয়েছে। তাঁকে যথাযথ চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। 

আমতলী থানার ওসি মো. শাহ আলম হাওলাদার বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    ভাঙ্গুড়ায় রোকেয়া দিবসে চার জয়িতাকে সংবর্ধনা

    ঘুমন্ত অবস্থায় এসআইয়ের ‘বিশেষ অঙ্গ’ কেটে দিলেন স্ত্রী

    'টাকা না দিয়ে ষড়যন্ত্র করায় আত্মহত্যার পথ বেছে নিলাম'

    চাটমোহরে ৪ জয়িতাকে সম্মাননা প্রদান

    বন্ধুর সহযোগিতায় এইচএসসি পরীক্ষা দিচ্ছেন দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী চয়ন

    দেশে বহু গণমাধ্যম গড়ে উঠলেও পেশাদারত্ব নিশ্চিত হয়নি: টিআইবি 

    ডাকাতির পর রাতভর ২ নারীকে ধর্ষণ, ৫ আসামির দুবার যাবজ্জীবন

    ভাঙ্গুড়ায় রোকেয়া দিবসে চার জয়িতাকে সংবর্ধনা

    ম্যানইউর জার্সিতে ইতিহাস গড়লেন পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত জিদান

    এই সরকার হটাতে আন্দোলনের প্রয়োজন হয় না: জিএম কাদের

    কড়াকড়িতেও ক্যাটরিনা-ভিকির বিয়ের ছবি ভাইরাল

    প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে রিজভীর ‘শেষ কথা’