বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১

সেকশন

 

ভক্তদের পদচারণায় মুখর শতবর্ষী মন্দির

আপডেট : ১৪ অক্টোবর ২০২১, ১০:০৯

গৌরনদী উপজেলার আশোকাঠী গ্রামের দুর্গামন্দির। ছবি: আজকের পত্রিকা প্রয়াত জমিদার মোহন লাল সাহার বাড়ির মন্দিরে মহা ধুমধামের মধ্য দিয়ে প্রতি বছরের মতো এবারও দুর্গাপূজার আয়োজন করা হয়েছে। ধারণা করা হয় সিংহ মূর্তি খচিতজমিদার বাড়ির এ মন্দিরটি ১৭১ বছরের পুরোনো। কারও কারও মতে তৎকালীন ভারতীয় উপমহাদেশে এত বড় দুর্গা মন্দির আর ছিল না।

গৌরনদী উপজেলার আশোকাঠী গ্রামের জমিদার বাড়ির সামনে অবস্থিত এ দুর্গা মন্দিরটি প্রতি বছরের মতো এবারও প্রচুর ভক্তের উপস্থিতি চোখে পড়েছে।

জমিদার বাড়ির উত্তরসূরিদের সঙ্গে আলাপকালে জানা গেছে, ১৮৫০ সালে খ্যাতিমান জমিদার মোহন লাল সাহার বাবা জমিদার প্রসন্ন কুমার সাহার উদ্যোগে মন্দিরটি নির্মাণ করা হয়েছিল। কারুকাজ খচিত ঐতিহাসিক এ মন্দিরের ছাদের ওপরের চারপাশে সিংহ মূর্তিগুলো আজও যেন কালের সাক্ষী হয়ে রয়েছে। সূত্রমতে, তৎকালীন সময়ে ভারতীয় উপমহাদেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে দর্শনার্থীরা পূজা অর্চনা করতে ভিড় জমাতেন। প্রায় ২০ ফুট উচ্চতার দুর্গা প্রতিমার এ মন্দিরটিতে এখনো পূর্বের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রয়েছে। ৩০ গজ দৈর্ঘ্যের ও ২০ গজ প্রস্থ মন্দিরটিতে রয়েছে নকশা করা ৪৫টি স্তম্ভ।

জমিদার মোহল লাল সাহার নাতি প্রভাষক রাজা রাম সাহা জানান, ১৯৭১ সালে পাক হানাদার ও তাদের স্থানীয় সহযোগী রাজাকারেরা তাদের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক লুটপাট করেছিলো। আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছিল পাইক পেয়াদাদের ঘরবাড়ি। গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছিল দুর্গা মন্দিরের অসংখ্য কারুকাজ খচিত অলংকরণ।

গৌরনদী উপজেলার সদরের আড়িয়ল খাঁ নদীর শাখা গৌরনদী-মীরেরহাট নদীর তীরে আশোকাঠী গ্রামে জমিদার মোহন লাল সাহার বাড়ি। বাড়ির সামনেই রয়েছে সান বাঁধানো সু-বিশাল দিঘি। জমিদার থাকতেন প্রসন্ন ভবনে। বাড়ির প্রবেশদ্বারে এই প্রাচীন সু-বৃহৎ দুর্গা মন্দির।

স্থানীয় প্রবীণ ব্যক্তিরা জানান, এক সময় জমিদার বাড়িতে এ অঞ্চলের মানুষের বিনোদনের জন্য প্রায় বারো মাস যাত্রা, জারি, সারি ও পালা গানের আয়োজন করা হতো। হাজার-হাজার মানুষের পদচারণায় মুখরিত ছিল এ বাড়িটি। পুরোনো দিনের সেই জৌলুশ এখন অনেকটাই হারিয়ে যেতে বসেছে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    ১৩ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা

    বিলপাড়ার সুস্বাদু চমচম

    ঘাটাইলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে হোটেলে ট্রাক, আহত ২

    বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে প্রেমিকার অনশন

    নিখোঁজ নয় পরিকল্পিত আত্মগোপনের নাটক করেছিলেন ভাঙ্গারি ব্যবসায়ী

    কলিন পাওয়েল বিশ্বাসঘাতক: ট্রাম্প

    টেক্সাসে উড্ডয়নের পরই উড়োজাহাজ বিধ্বস্ত

    নৌকার এমপি হয়ে লাভবান হয়েছেন: শাহজাহানকে জেলা আ. লীগ সভাপতি

    অভাবের তাড়নায় কৃষকের আত্মহত্যার অভিযোগ