মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১

সেকশন

 

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বন্ধ হলে ঘুঘুর বাসা

আপডেট : ১২ অক্টোবর ২০২১, ২১:২২

বন্ধের ১৮ মাসে আবাসিক হলের মধ্যে বাসা বেঁধেছে এক জোড়া ঘুঘু। ছবি: আজকের পত্রিকা  দীর্ঘ ১৮ মাস পর গত শনিবার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলগুলো খুলে দেওয়া হয়েছে। রুমগুলোতে আলো জ্বলেনি দীর্ঘ এই দেড় বছর। কারও পদচিহ্নও পড়েনি এই সময়টায়। আর এ সুযোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের লালন শাহ হলের ৪৩২ নম্বর কক্ষে বাসা বাঁধে এক জোড়া ঘুঘু। ঘরের মধ্যে ডিমও দিয়েছে তারা। 

পাখি বিশেষজ্ঞদের মতে, বাসা বাঁধার মৌসুম ছাড়া সাধারণত দলে থাকতে পছন্দ করে ঘুঘু। ঝোপঝাড়, গাছের উঁচু-নিচু ডাল, পছন্দমতো জায়গা পেলেই ঘুঘু বাসা বাঁধে। তবে করোনাকালে নিরাপদ আশ্রয়স্থল হিসেবে হলের কক্ষকেই বেছে নিয়েছে ওই এক জোড়া ঘুঘু। গত ৩০ বছরে ঘুঘুর সংখ্যা কমেছে। কোথাও কোথাও এদের সংখ্যা কমে চার ভাগের এক ভাগে নেমে এসেছে। 

এ বিষয়ে লালন শাহ হলের ৪৩২ নম্বর রুমের আবাসিক শিক্ষার্থীরা বলেন, দেড় বছর পর হলের রুমে ঢুকেই ওই ঘুঘু জোড়ার উপস্থিতি লক্ষ্য করি। আমাদের দেখে উড়তে শুরু করে তারা। পাখিগুলো রান্নার হাঁড়িতে বাসা বেঁধেছে। সেখানে তারা ডিম পেড়েছে এবং বাচ্চা ফুটানোর জন্য তা দিচ্ছে। 
 
বন্ধের ১৮ মাসে আবাসিক হলের মধ্যে বাসা বেঁধেছে এক জোড়া ঘুঘু। ছবি: আজকের পত্রিকা ওই রুমের আরেক শিক্ষার্থী মো. তৌফিক হোসেন বলেন, এ অনুভূতি সত্যিই অসাধারণ। পাখি পোষা অনেকের কাছে শখের। কিন্তু আমার কাছে মনে হয় পাখি ধরে খাঁচায় বন্ধ করে রাখা মানে তার স্বাধীনতা হরণ করা। সকল প্রাণিই স্বাধীনভাবে বেঁচে থাকবে এটাই প্রত্যাশা। এরই মধ্যে আমার এক বন্ধুর সহযোগিতায় হল রুমের জানালার ওপরে খড়কুটোসহ পাখিটিকে বসিয়ে দিয়েছি। 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    থেমে থেমে হতে পারে বৃষ্টি, বন্দরে ৩ নম্বর সতর্কসংকেত

    আসছে মাংসল দেশি ব্রয়লার

    দেশের কয়েক জায়গায় বৃষ্টি হতে পারে

    বিলীনের পথে ইউরোপের পাখি

    মাছ ধরার জালে ধরা পড়া দ্বিতীয় গন্ধগোকুলটিও মারা গেছে

    শিবগঞ্জ সীমান্ত থেকে কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধার 

    হাগের আডির মতো ২০-২৫ টেহায় বেচতাছে বন

    ভারত-পাকিস্তান সেমিফাইনালে খেলবে, বলছেন পাকিস্তানি সাবেক 

    তফসিল ঘোষণার সাত দিন পরও মনোনয়ন ফরম না পাওয়ায় প্রার্থীদের ক্ষোভ 

    পিএসসির প্রশ্ন ফাঁস করলে সর্বোচ্চ ১০ বছর জেল

    ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মেয়র আতিকুলের বিরুদ্ধে মামলা