রোববার, ১৭ অক্টোবর ২০২১

সেকশন

 

কর্ণফুলী তীরের অবৈধ স্থাপনা

উচ্ছেদ না করলে ফের আদালতে ফয়সালা

আপডেট : ১২ অক্টোবর ২০২১, ১০:৪৩

চট্টগ্রামের চাক্তাই খালের মোহনায় গতকাল সংবাদ সম্মেলন করেন চট্টগ্রাম নদী ও খাল রক্ষা আন্দোলনের নেতারা। ছবি: আজকের পত্রিকা বারবার তাগাদা সত্ত্বেও কর্ণফুলী তীরের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ না করার প্রতিবাদ জানিয়েছেন চট্টগ্রাম নদী ও খাল রক্ষা আন্দোলনের নেতারা। আগামী ১৫ দিনের মধ্যে হাইকোর্টের আদেশ অবমাননার অভিযোগ এনে সুনির্দিষ্ট প্রতিকার চাইবেন বলে জানিয়েছেন তাঁরা। গতকাল সোমবার সকালে চাক্তাই খালের মোহনায় কর্ণফুলীর তীরে এক সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে এই কথা জানান সংগঠনের নেতারা।

সংগঠনের সভাপতি চৌধুরী ফরিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন অধ্যাপক মনোজ কুমার দেব। সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. স্বপন কুমার পালিত, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মঞ্জুরুল কিবরিয়া, চট্টগ্রাম নদী ও খাল রক্ষা আন্দোলনের সাধারণ সম্পাদক আলীউর রহমান, কর্ণফুলী নদী সাম্পান মাঝি কল্যাণ সমিতি ফেডারেশন সভাপতি এস এম পেয়ার আলী, সিনিয়র সহসভাপতি জাফর আহমেদ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লোকমান দয়াল প্রমুখ।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, নদীর পাড়ে মাছ বাজার ও ভেড়া মার্কেট উচ্ছেদ করার বিষয়ে হাইকোর্টের আদেশের চার নম্বর কলামে সুস্পষ্ট নির্দেশনা রয়েছে। ২০১৯ সালের আদেশের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ হওয়ার ৯০ দিনের মধ্যে নতুন মাছ বাজার উচ্ছেদ করা বাধ্যতামূলক ছিল। কিন্তু বন্দর কর্তৃপক্ষ মাছ বাজার উচ্ছেদ না করে নতুন করে বরফ কল স্থাপনের জন্য কর্ণফুলী নদীর মাঝখানে শাহ আমানত সেতুর মাঝের পিলার বরাবর ২ হাজার স্কয়ার ফুট নদী নতুন করে ইজারা দিয়েছে। যা সরাসরি হাইকোর্টের আদেশের লঙ্ঘন।

তাঁরা বলেন, ‘হাইকোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী কর্ণফুলী নদীতে স্থাপিত মাছ বাজার ও বরফ কলের চুক্তি বাতিল করতে গত ৩০ সেপ্টেম্বর বন্দর চেয়ারম্যান বরাবরে ১০ দিনের সময়সীমা দিয়ে আবেদন করা হয়। রোববার ছিল আবেদনের শেষ দিন। বন্দর কর্তৃপক্ষ কোনো সিদ্ধান্ত আমাদের জানায়নি।’

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    খেতের পেঁপে খেতেই নষ্ট

    ২১ হাজারে চিকিৎসক ১

    নিজ ক্যাম্পাসে ভর্তি পরীক্ষা শুরু আজ

    ভালো অবস্থানে আছে সাকিব

    এক যুগের আইনি লড়াই শেষে স্বপদে ফিরলেন অধ্যক্ষ

    পেশার স্বীকৃতি চান মোবাইল ফোন মেরামতকারীরা

    চোখ থাকবে যাঁদের ওপর

    একসময়ের ‘বেকার’ গোলরক্ষকই বাঁচালেন চেলসিকে

    নবরূপে এল আলতাফ শাহনেওয়াজের ‘আলাদিনের গ্রামে’