মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১

সেকশন

 

বর্ষায় নৌকা ও শুষ্ক মৌসুমে সাঁকোয় চলে পারাপার

আপডেট : ১২ অক্টোবর ২০২১, ১৫:৫৯

মান্দা উপজেলার প্রসাদপুর খেয়াঘাটের পূর্বপাড়ের মানুষ আত্রাই নদী পার হচ্ছে। ছবিটি গতকাল তোলা। আজকের পত্রিকা নওগাঁর মান্দা উপজেলার প্রসাদপুর খেয়াঘাটে একটি সেতুর অভাবে ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন আত্রাই নদীর পূর্বপাড়ের হাজার মানুষ। বর্ষায় নৌকা আর শুষ্ক মৌসুমে নড়বড়ে বাঁশের সাঁকোই নদী পারাপারে তাঁদের একমাত্র ভরসা।

স্থানীয়দের দাবি, প্রসাদপুর খেয়াঘাটে একটি সেতু নির্মিত হলে নদী পারাপারের অপেক্ষায় আর থাকতে হবে না। ঘুরতে হবে না অন্তত তিন কিলোমিটার পথ। মাত্র ২০০ মিটার পথ পাড়ি দিয়ে উপজেলা সদরে পৌঁছানো যাবে। রোগীদের সহজেই নেওয়া যাবে হাসপাতালে। কৃষকদের পণ্য পরিবহনে ভোগান্তি ও ব্যয় দুটোই কমবে। একই সঙ্গে উপজেলার প্রসাদপুর, গনেশপুর, মৈনম, কাঁশোপাড়া ও কশব ইউনিয়নের লোকজন সহজেই উপজেলা সদরে যাতায়াত করতে পারবেন।

তবে উপজেলা প্রকৌশল দপ্তর বলছে, ওই খেয়াঘাটে একটি সেতু নির্মাণের জন্য কয়েক দফায় মাটি পরীক্ষা, স্থান নির্ধারণ ও সেতুর ধরন নিয়ে একাধিক জরিপ কাজ করেছে এলজিইডি প্রধান কার্যালয়ের প্রতিনিধি দল। শিগগিরই সেতুর নির্মাণকাজ শুরু করা যাবে।

স্থানীয়রা জানান, আত্রাই নদীর প্রসাদপুর খেয়াঘাটে একটি সেতুর অভাবে পারাপারের জন্য দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হয় স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসার শিক্ষার্থীসহ অফিসগামী লোকজনকে। দেরিতে পারাপারের কারণে অনেক সময় বিড়ম্বনায় পড়তে হয় তাঁদের। এসব সুবিধাবঞ্চিত হচ্ছেন পাঁচ ইউনিয়নের অন্তত দেড় লাখ মানুষ।

গাড়ীক্ষেত্র গ্রামের জয়নাল আবেদীন বলেন, শুষ্ক মৌসুমে বাঁশের নড়বড়ে সাঁকো দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে লোকজন নদী পারাপার হন। বর্ষা মৌসুমে নদীর পানি বাড়লে ঝুঁকি আরও বেড়ে যায়। এ সময় নৌকার জন্য দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হয়। পারাপারে সমস্যার কারণে সময়মতো গন্তব্যে পৌঁছানো যায় না। রাত ১০টার পর পারাপার বন্ধ হয়ে গেলে তিন কিলোমিটার ঘুরে পরে গন্তব্যে যেতে হয়।

প্রসাদপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বেলাল হোসেন খান বলেন, সংকটাপন্ন রোগীদের হাসপাতালে নিতে এ অঞ্চলের মানুষকে ভোগান্তি পোহাতে হয়। নদী পারাপারের অপেক্ষায় না থেকে শুঁটকির মোড় থেকে ফেরিঘাট হয়ে তিন কিলোমিটার পথ ঘুরে হাসপাতালে যেতে হয় তাঁদের। দীর্ঘ সময়ের কারণে এসব রোগীর অনেককেই বাঁচানো সম্ভব হয় না।

উপজেলা প্রকৌশলী মোরশেদুল হাসান বলেন, এলজিইডির প্রধান কার্যালয়ের একাধিক দল মাটি পরীক্ষা, স্থান নির্ধারণসহ সেতুর ধরন নিয়ে কাজ করে। গত বছর এই সেতু নির্মাণকাজের সমীক্ষা প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক মহোদয় সেতুটির সম্ভাব্যতা সরেজমিনে পরিদর্শন করেন। সন্তোষ প্রকাশ করে দ্রুত এর নির্মাণকাজ শুরু করা যাবে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    সিমেন্ট বোঝাই ট্রাক পুকুরে

    টাঙ্গাইলে অপরাধ বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

    সখীপুরে নিত্যসঙ্গী যানজট

    ঢাবিতে সাম্প্রদায়িক হামলার বিরুদ্ধে মশাল মিছিল 

    মহেশখালীতে এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা

    খেয়াঘাটে দুই বোনকে শ্লীলতাহানি ও মারধরের ঘটনায় গ্রেপ্তার ১

    পূজামণ্ডপ সংশ্লিষ্ট সহিংসতায় গ্রেপ্তার ৪৫০, মামলা ৭১

    সাফারি পার্কে জেব্রা পরিবারে নতুন শাবকের জন্ম

    গাজীপুরে বিবস্ত্র অপ্রকৃতিস্থ অবস্থায় উদ্ধার স্বামী-স্ত্রীর মৃত্যু