মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১

সেকশন

 

স্বামী মৃত দেখিয়ে ভাতা

আপডেট : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৮:০৮

নীলফামারীর সৈয়দপুরে জীবিত স্বামীকে মৃত দেখিয়ে ১৭ বছর থেকে বিধবা ভাতা উত্তোলন করছেন মনজিলা বেওয়া নামে এক নারী। দীর্ঘদিন থেকে এভাবে সরকারি অর্থ আত্মসাৎ করলেও উপজেলা সমাজসেবা কর্তৃপক্ষ নির্বিকার।

উপজেলার বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের লক্ষণপুর পশ্চিমপাড়া এলাকার বাসিন্দা মনজিলা বেওয়া। তাঁর স্বামী চৌমুহনী বাজারে একটি হোটেলের কর্মচারী।

মনজিলা বেওয়া জানান, ২০০৪ সালে তাঁর ভাই ইউিপ সদস্য আইয়ুব আলী ও সমাজকর্মী ফরিদা বেগমের মাধ্যমে তিনি এ বিধবা ভাতার কার্ড করেছেন। তিনি বলেন, তার স্বামী বাড়িতে নিয়মিত থাকেন না। মাঝে মাঝে বাড়ি থেকে চলে যায় এবং দীর্ঘদিন তাঁর কোনো খোঁজ খবর থাকেন না। ওই সময় তিনি প্রায় এক বছর নিখোঁজ ছিলেন। সেসময় সন্তানদের নিয়ে সংসার চালানো দুরূহ হওয়ায় ভাই ইউপি মেম্বার সরকারি এই সুবিধা পাইয়ে দিয়েছেন।

এদিকে সমাজকর্মী ফরিদা বেগম জানান, ‘বিধবা ভাতা শুরু হয় ১৯৯৭-৯৮ সালের দিকে। এ সময় যারাই এসেছেন তাদের ভাতা কার্ড করে দেওয়া হয়েছে।’

উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ জানান, ‘আমি নতুন এসেছি। সুনির্দিষ্টভাবে অভিযোগ দিলে আমরা কার্ডটি বাতিল করে দেব। এ ক্ষেত্রে যদি আমার অফিসের কারো যোগসাজশ থাকে এবং প্রমাণিত হয় তাহলে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয়ভাবে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    জেলায় শনাক্ত ও মৃত্যুহীন একদিন

    মাসে অর্ধকোটি টাকা কেনাবেচা

    ফেরেনি ৩ হাজার শিক্ষার্থী

    নওয়াববাড়ি এখন রিসোর্ট

    নকলায় ইউপি নির্বাচনে নৌকার মনোনয়ন ঘোষণা

    অস্ত্রোপচার বন্ধ, দুশ্চিন্তা

    বিশ্বে করোনায় শনাক্ত কমেছে, বেড়েছে মৃত্যু

    গান্ধী পরিবারের হাতে ভরসা কমছে কংগ্রেসের

    তাণ্ডবে আশ্রয় মিলেছিল ধানখেত ও মুসলিম প্রতিবেশীর ঘরে

    ‘স্পিড মানি’র গতি

    স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডেঙ্গুপ্রতিবেদন নিয়ে প্রশ্ন

    ছানার পুডিং