মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪

সেকশন

 
ফ্যাক্টচেক

খড় ও বাঁশ দিয়ে বানানো হেলিকপ্টারের ছবি ভাইরাল, কে বানাল

আপডেট : ১৭ মে ২০২৪, ১৮:৫১

বাঁশ ও খড় দিয়ে তৈরি হেলিকপ্টার সদৃশ একটি যানের ছবি সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। ছবিতে দেখা যাচ্ছে, যানটিকে সড়কে স্থাপন করা হয়েছে। এর ছাদে ও ভেতরে কিছু মানুষ বসে আছেন এবং রাস্তায় সামনে–পেছনে বেশ কয়েকজন মোটরসাইকেল আরোহীও রয়েছেন। গত শনিবার (১১ মার্চ) ‘Tamim Hossain’ নামের ফেসবুক পেজে ছবিটি পোস্ট করে দাবি করা হয়, যানটি তৈরি করতে দুই মাস সময় লেগেছে। আজ শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত পেজটি থেকে ছবিটি প্রায় সাড়ে ৬ হাজার বার শেয়ার হয়েছে। পোস্টটিতে রিয়েকশন পড়েছে ৪ লাখ ৯৬ হাজারের বেশি। কমেন্ট পড়েছে ৪ হাজারের বেশি। 

দুই মাসে হেলিকপ্টার সদৃশ যান তৈরি করা হয়েছে দাবিতে ভাইরাল পোস্ট। ছবি: ফেসবুক এসব কমেন্টে ফেসবুক ব্যবহারকারীদের কেউ কেউ ছবিটির সত্যতা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছেন। আবার কেউ কেউ সত্য ভেবে মন্তব্য করেছেন। যেমন, ‘Mr Perfect’ নামের একটি ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে লেখা হয়, ‘দুই মাস যদি রাজমিস্ত্রি লেবার করতে, তাহলে ২০ হাজার টাকা আসতো। অনেক কাজে লাগতো!’ রফিকুল ইসলাম নামে আরেক লিখেছেন, ‘মাশাল্লাহ, অনেক সুন্দর হয়েছে। আপনাদের পরিশ্রম সার্থক হয়েছে।’ 

দাবিটির সত্যতা যাচাইয়ে ছবিটি বিশ্লেষণ করে আজকের পত্রিকার ফ্যাক্টচেক বিভাগ। এতে মোটরসাইকেল আরোহী ও যানটিতে থাকা মানুষদের মুখাবয়বে অস্বাভাবিকতা ধরা পড়ে। মুখাবয়বগুলো স্পষ্ট নয়। সাধারণত কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা দিয়ে তৈরি ছবিতে এ ধরনের সমস্যা থাকে।

ছবিটি সম্পর্কে নিশ্চিত হতে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স (এআই) বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা দিয়ে তৈরি ছবি শনাক্তকারী একাধিক ওয়েবসাইট দিয়ে যাচাই করে দেখা হয়। এআই ছবি শনাক্তকারী ওয়েবসাইট হাইভ ছবিটি যাচাই করে জানায়, এটি শতভাগ কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার সাহায্যে তৈরি করা হয়েছে। একই ধরনের ফল দিয়েছে ছবি শনাক্তকারী ওয়েবসাইট এআই অর নট এবং হাগিং ফেইস। 

ভাইরাল হেলিকপ্টার সদৃশ যানটি এআই দিয়ে তৈরি। ছবি: এআই ছবি শনাক্তকারী ওয়েবসাইট হাইভের বিশ্লেষণ অনুসন্ধানের এ পর্যায়ে ছবিটির উৎস খুঁজে দেখা হয়। রিভার্স ইমেজ অনুসন্ধানে ‘parsa.ram.suthar’ নামের একটি ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে সম্ভাব্য প্রথম পোস্টটি পাওয়া যায়। গত ৩ মে (শুক্রবার) অ্যাকাউন্টে রিল আকারে যানের ছবিটি পোস্ট করা হয়। হিন্দি ভাষায় রিলটির ক্যাপশনে লেখা হয়, ‘গরিবকে কেউ পছন্দ করে না।’ একই ক্যাপশনে উল্লেখ করা হয়েছে, এটি একটি সৃজনশীল চিত্রকর্ম (Creative art picture)। 

অর্থাৎ ছবিটি এআই প্রযুক্তির সহায়তায় তৈরি। এর সঙ্গে বাস্তবতার কোনো সম্পর্ক নেই।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
    ফ্যাক্টচেক

    সিলেটের বন্যার জন্য দায়ী ফারাক্কা বাঁধ? ভাইরাল ভিন্ন দেশের ভিডিও

    ফ্যাক্টচেক

    সমুদ্রসৈকতে বিরল গোলাপি ডলফিন! ভাইরাল ছবিগুলো বাস্তব নয় 

    ফ্যাক্টচেক

    ফিলিস্তিনের জুনিয়র ফুটবল দলের স্পনসর কোকা–কোলা!

    ফ্যাক্টচেক

    স্বামীর প্রতি রাগ ঝাড়তেই কি পয়সা খরচ করে জঙ্গলে এই নারীরা

    ফ্যাক্টচেক

    রাসেলস ভাইপার আতঙ্ক: সোশ্যাল মিডিয়া, সংবাদমাধ্যমে ভুল তথ্যের ছড়াছড়ি

    ফ্যাক্টচেক

    ‘শত শত গরু ভারত থেকে আসছে’ দাবিতে ভাইরাল ভিডিওটি অন্য দেশের

    জামিনে মুক্তি পেলেন যুব মহিলা লীগের বহিষ্কৃত নেত্রী পাপিয়া

    অস্ট্রেলিয়াকে অপেক্ষায় রেখে সেমিতে ভারত

    পাসপোর্ট অফিসের কর্মচারী ও তাঁর স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

    যুক্তরাষ্ট্রের মানবপাচার প্রতিবেদনে বাংলাদেশ আগের অবস্থানেই, বেড়েছে প্রচেষ্টা

    ভিসামুক্ত প্রবেশাধিকার দিয়ে মালদ্বীপে ১৮ লাখ নতুন পর্যটক, পেছনে পড়ল সেশেলস 

    শরীফার গল্প: জেন্ডার বিশেষজ্ঞদের মত নিয়ে নতুন গল্প যুক্ত করার নির্দেশ