বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪

সেকশন

 

নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার বরাদ্দ না পেয়ে পুলিশে অসন্তোষ

আপডেট : ০৮ মে ২০২৪, ১০:৩৪

উপজেলা নির্বাচনে ভোট গ্রহণ আজ। তার আগে কেন্দ্রে কেন্দ্রে ভোটের সরঞ্জাম পৌঁছানো হয়। গতকাল ঢাকার কেরানীগঞ্জে। ছবি: আজকের পত্রিকা অন্যান্য নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্ব পালনে যাওয়ার আগেই ভাতা (টিএ-ডিএ) পেলেও এবার উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রথম ধাপে তা পাননি পুলিশ সদস্যরা। তবে পুলিশ সুপারের (এসপি) অধীন থেকে জেলা প্রশাসকের (ডিসি) অধীনে দেওয়া আনসার সদস্যরা ঠিকই ভাতা পেয়েছেন। এ কারণে মনে অসন্তোষ নিয়ে ভোটের দায়িত্ব পালনে গেছেন মাঠপর্যায়ের পুলিশ সদস্যরা।

বিষয়টি কয়েকটি জেলার এসপি ও রেঞ্জের উপমহাপরিদর্শকেরা (ডিআইজি) পুলিশ সদর দপ্তরে জানিয়েছেন এবং দ্রুত সমাধানের অনুরোধ করেছেন। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব জানা গেছে। 

নির্বাচন কমিশন (ইসি) বলেছে, পুলিশের জন্য অর্থ মন্ত্রণালয় থেকে বরাদ্দ না আসায় নির্বাচনের আগে টাকা দেওয়া যায়নি। নির্বাচনে ভোট গ্রহণ ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় দায়িত্ব পালনকারীদের ভাতা ও সম্মানী দেয় নির্বাচন কমিশন। ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রথম ধাপে আজ বুধবার ১৩৯টি উপজেলায় ভোট গ্রহণ করা হবে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় পুলিশের পাশাপাশি বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি), আনসার, কোস্ট গার্ড, গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর (ভিডিপি) সদস্যরা দায়িত্ব পালন করবেন। প্রতিটি সাধারণ কেন্দ্রে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ১৭ জন সদস্য থাকবেন। তবে গুরুত্বপূর্ণ (ঝুঁকিপূর্ণ) কেন্দ্রে থাকবেন ১৯ জন। 

পুলিশ সূত্র বলছে, উপজেলা নির্বাচনে দায়িত্ব পালনের জন্য বেশ কিছুদিন ধরে প্রস্তুতি নিয়েছেন দায়িত্ব পাওয়া পুলিশ সদস্যরা। সাধারণত নির্বাচনের আগেই জেলার এসপিদের কাছে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যদের জন্য বরাদ্দ পাঠায় ইসি। এবার ভোটের আগের দিন গতকাল মঙ্গলবারও এই অর্থ পাননি এসপিরা। তবে জেলা প্রশাসকদের কাছে বরাদ্দ চলে গেছে গত ৩০ এপ্রিল। এতে নির্বাচনে দায়িত্ব পালনে যাওয়ার আগে ক্ষোভ জানান পুলিশের মাঠ পর্যায়ের সদস্যরা।

মোবাইল ফোনে কল করে জানতে চাইলে রাজশাহীর এসপি সাইফুর রহমান বরাদ্দ না পাওয়ার কথা জানিয়ে আজকের পত্রিকাকে বলেন, এটি অফিশিয়াল বিষয়। এ নিয়ে আর কিছু মিডিয়ায় বলা যাবে না। 

চট্টগ্রাম রেঞ্জের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক এসপি বলেন, কেউই বরাদ্দ না পেলে সমস্যা ছিল না। ডিসিদের নামে বরাদ্দ এলেও এসপিদের কাছে আসেনি। এটা ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বুঝলেও মাঠ পর্যায়ের সদস্যদের বোঝানো কঠিন। অন্যবার টাকা নিয়ে দায়িত্ব পালনে গেলেও এবার যেতে হয়েছে খালি হাতে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতনদের নজরে আনা হয়েছে। 

চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি নুরে আলম মিনা বলেন, ‘এ বিষয়ে আসলে আমার কিছু বলার নেই। নির্বাচনের বরাদ্দ এসপির কাছে আসে। তাঁরাই বিষয়টি দেখভাল করেন।’

৩০ এপ্রিল উপজেলা নির্বাচন পরিচালনা ব্যয় হিসেবে জেলা প্রশাসক ও আপিল কর্তৃপক্ষকে অর্থ মঞ্জুরি ও বরাদ্দসংক্রান্ত চিঠিতে ইসি বলেছে, ৮ মে উপজেলা নির্বাচন পরিচালনার ব্যয়ের জন্য তাদের ১৩ কোটি ৩২ লাখ ৯০ হাজার টাকা বরাদ্দ দেওয়া হলো।

পুলিশ সূত্র বলছে, উপজেলা নির্বাচনে মোবাইল ও স্ট্রাইকিং টিম নিয়েও পুলিশে অসন্তুষ্টি রয়েছে। আগে সব সময় মোবাইল ও স্ট্রাইকিং ফোর্সে পুলিশের সঙ্গে ব্যাটালিয়ন আনসার সদস্যদের দেওয়া হতো। কিন্তু এবার ব্যাটালিয়ন আনসারের পরিবর্তে পুলিশের সঙ্গে ভিডিপি দিয়ে মোবাইল টিম করে পরিপত্র জারি করা হয়েছে। এ ছাড়া আগে ব্যাটালিয়ন আনসার সদস্যরা এসপির অধীনে দায়িত্ব পালন করতেন। কিন্তু এবার তাঁদের ডিসির অধীনে দিয়ে পরিপত্র জারি করা হয়েছে। 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পুলিশের একটি রেঞ্জের ডিআইজি বলেন, এ দুটি বিষয় নিয়ে পুলিশের ভেতর নানা আলাপ-আলোচনা চলছে। অসন্তোষও আছে। বিষয়টি সব স্তরের কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে। দ্রুত সমাধানেরও অনুরোধ করা হয়েছে। 

সার্বিক বিষয়ে পুলিশ সদর দপ্তরের দৃষ্টি আকর্ষণ করলে সদর দপ্তরের মুখপাত্র ইনামুল হক সাগর কোনো মন্তব্য করেননি।

পুলিশের বরাদ্দ না দেওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে নির্বাচন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ আজকের পত্রিকাকে বলেন, পুলিশের জন্য যে বরাদ্দ, তা অর্থ মন্ত্রণালয় থেকে আসেনি। এলে অবশ্যই দেওয়া হতো। তা ছাড়া সব সময়ই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর বরাদ্দ নির্বাচনের পর দেওয়া হয়। শুধু গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে দেওয়া হয়েছিল। ভোট গ্রহণের ছয় মাস পরও এই টাকা দেওয়ার নজির আছে। তিনি বলেন, শুধু ভোট গ্রহণ কর্মকর্তাদের বরাদ্দ আগে দেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     

    গোয়েন্দা তথ্য না থাকলে ঈদযাত্রায় যানবাহনে তল্লাশি নয় 

    ইউনিফর্মে পুলিশ টিকটক করলে কঠোর ব্যবস্থা

    বেনজীরের অবৈধ সম্পদের প্রমাণ মিলেছে, দুদকের মামলা শিগগির

    ঈদে ফিটনেসবিহীন গাড়ি সড়কে চালালেই ব্যবস্থা: আইজিপি

    কালোবাজারে টিকিট বন্ধে রেলওয়ে পুলিশ কাজ করছে: আইজিপি

    ভোটার স্থানান্তর সেবা পুনরায় চালু 

    ঈদের ছুটি শেষেও ঢাকা ছাড়ছে মানুষ

    চিলমারীতে ঝড়ে প্রায় শতাধিক ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত

    পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া একেবারে বন্ধ হয়ে আছে: সন্তু লারমা

    ভারতে দ্বিপক্ষীয় সফরে গিয়ে যা যা করবেন প্রধানমন্ত্রী

    ঢল ও বৃষ্টিতে বাড়ছে শেরপুরের নদ-নদীর পানি

    বাগেরহাটে মাঠে গরু আনতে গিয়ে বজ্রপাতে ২ কৃষকের মৃত্যু