শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪

সেকশন

 

ইসরায়েলি হামলায় ইরানের পরমাণু স্থাপনার কোনো ‘ক্ষতি হয়নি’ 

আপডেট : ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৬

ইরানের নাতাঞ্জ পরমাণু কর্মসূচির অবকাঠামোর ওপরের অংশ। স্যাটেলাইটের সহায়তায় তোলা ছবি  ইরানে ইসরায়েল ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছিল বলে জানিয়েছিল মার্কিন সংবাদমাধ্যম এবিসি নিউজ। তবে ইরান জানিয়েছে, ক্ষেপণাস্ত্র নয়, ড্রোন হামলা হয়েছিল। এসব ড্রোনের অধিকাংশই ভূপাতিত করা হয়েছে এবং এই হামলায় ইস্পাহানে অবস্থিত নাতাঞ্জ পরমাণু কর্মসূচি অবকাঠামোর কোনো ক্ষয়ক্ষতিই হয়নি। 

ইরানের রাষ্ট্রায়ত্ত সম্প্রচারমাধ্যমের বরাত দিয়ে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান বলেছে, ইরানের ইস্পাহানে দেশটির যে নাতাঞ্জ পরমাণু কর্মসূচি আছে, তার কোনো ক্ষতিই হয়নি। পরমাণু সমৃদ্ধকরণের এই অবকাঠামোর পুরোটাই ভূগর্ভে অবস্থিত। ইরানের রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারমাধ্যম বলেছে, ‘এই অবকাঠামো পুরোপুরি নিরাপদ আছে।’ 

এর আগে ইরানের মহাকাশ সংস্থা দাবি করে, ইসরায়েল এখন পর্যন্ত (এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত) কোনো ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায়নি। তবে ইসরায়েল থেকে আগত বেশ কয়েকটি ড্রোন সফলভাবে ভূপাতিত করা হয়েছে। ইরানের মধ্যাঞ্চলের শহর ইস্পাহানে বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যাওয়ার পর সংস্থাটি এই দাবি করে। 

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এক্সে শেয়ার করা এক টুইটে ইরানি মহাকাশ সংস্থার মুখপাত্র হোসেইন দালিরিয়ান বলেছেন, ‘দেশের আকাশ প্রতিরক্ষাব্যবস্থা সফলভাবে বেশ কয়েকটি ড্রোন ভূপাতিত করেছে এবং এখন পর্যন্ত কোনো ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়নি (ইরানে)। 

ইরানি সংবাদ সংস্থা ফার্স নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, ইরানের ইস্পাহান শহরের নিকটবর্তী শেকারি বিমান ঘাঁটির কাছে অন্তত তিনটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। রাষ্ট্রায়ত্ত বার্তা সংস্থা ইরনার প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, ইস্পাহান শহরের কাছে বিস্ফোরণের খবর পাওয়ার পর ইরান আকাশ প্রতিরক্ষা ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে। 

এর আগে মার্কিন কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে দেশটির সংবাদমাধ্যম এবিসি নিউজ জানায়, ইসরায়েলি ক্ষেপণাস্ত্র ইরানে আঘাত হেনেছে। তবে কোথায় আঘাত হেনেছে, সে বিষয়ে কোনো তথ্য দেননি তাঁরা কিংবা ক্ষেপণাস্ত্র ছাড়া অন্য কোনো যুদ্ধাস্ত্র ব্যবহার করা হয়েছে কি না, তা-ও জানাননি। ইরানের পক্ষ থেকে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার কথা অস্বীকার করা হয়েছে। 

ইরনার প্রতিবেদনে বলা হয়, ইরানের বিভিন্ন প্রদেশে আকাশ প্রতিরক্ষাব্যবস্থা চালু করা হয়েছে। কী কারণে এসব প্রতিরক্ষাব্যবস্থা চালু করা হয়েছে, সে বিষয়ে কোনো তথ্য দেয়নি ইরনা। তবে ইরানের বিভিন্ন প্রদেশেই বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে প্রতিবেদনে। 

এদিকে, সিরিয়া ও ইরাকের আকাশে বিস্ফোরণের কথা শোনা গেলেও ইসরায়েলি বাহিনী দেশ দুটিতে আঘাত হেনেছে কি না, সে বিষয়ে কোনো তথ্য দিতে পারেননি মার্কিন কর্মকর্তারা। ইরাক ও সিরিয়ার তরফ থেকেও এ বিষয়ে কোনো তথ্য দেয়নি।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     

    পারমাণবিক সক্ষমতা আরও বাড়াচ্ছে ইরান: আইএইএ

    পারমাণবিক সক্ষমতা আরও বাড়াচ্ছে ইরান: আইএইএ

    ইসরায়েলের বিরুদ্ধে ‘গুরুতর’ অস্ত্রের ব্যবহার বাড়াচ্ছে হিজবুল্লাহ, বড় সংঘাতের আশঙ্কা

    ইসরায়েলি জিম্মিদের আর কতজন জীবিত আছে জানে না হামাসের কেউ 

    লোহিত সাগরে গ্রিক মালিকানাধীন জাহাজে হুতিদের হামলা

    জেলেনস্কির নিজ শহরে রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, নিহত ৯ 

    ইলন মাস্ক কি ৫৬ বিলিয়ন ডলার বেতনের যোগ্য

    দিনাজপুরে গোর এ শহীদ ঈদগাহের মুসল্লিদের জন্য দুটি বিশেষ ট্রেন

    শোলাকিয়ায় ঈদের জামাত সকাল ৯টায়, নাশকতার আশঙ্কা করছে না পুলিশ

    হজযাত্রীদের অতিগরম থেকে মুক্তি দেবে রোড-কুলিং প্রযুক্তি

    ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে ১০ ঘণ্টা পর যান চলাচল স্বাভাবিক

    ইতিহাস গড়ে আরও এক সুখবর পেল যুক্তরাষ্ট্র