শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

সেকশন

 

কোটিপতি বানানোর লোভে ফেলে খুন, ২৩ দিন পর লাশ উদ্ধার    

আপডেট : ১১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২১:৫৩

বগুড়ার শিবগঞ্জে পান ব্যবসায়ী মোফাজ্জল হোসেন (৪৮) নিখোঁজের ২৩ দিন পর ঢাকার আশুলিয়া থেকে তাঁর গলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে তার দুই মামাতো ভাই ও ভাতিজি জামাইকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। নিহত মোফাজ্জল হোসেন উপজেলার পার লক্ষ্মীপুর চাঁদপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। তিনি গত ১৯ আগস্ট থেকে নিখোঁজ হয়েছিলেন। 

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, নিহত মোফাজ্জলের ভাতিজি জামাই ও শিবগঞ্জ উপজেলার ভাসুবিহার গ্রামের ফজলার রহমানের ছেলে রুবেল (৩০), ইসাহাকের ছেলে মিলন (৪৫) ও মৃত অমির উদ্দিনের ছেলে সামাদ (৫০)। মিলন ও সামাদ নিহত তোফাজ্জল হোসেনের মামাতো ভাই। 

নিহতের স্ত্রী রাশেদা বেগম আজকের পত্রিকাকে জানান, বেশ কয়েক মাস হলো ভাতিজি জামাই রুবেল জ্বীনের বাদশার কথা বলে কোটিপতি বানানোর লোভ দেখিয়ে তার স্বামীর কাছ থেকে ৪ লাখ টাকা নেয়। গত ১৯ আগস্ট সকাল ৮টায় পান কেনার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হন মোফাজ্জল। রাত ৯টায় তাকে ফোন করা হলে তিনি উপজেলার মোকামতলা বাসস্ট্যান্ডে আছেন বলে জানান। তারপর থেকে তাঁর স্বামীর ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। বিভিন্ন স্থানে খোঁজ করেও তার কোন সন্ধান না পেয়ে গত ২৩ আগস্ট শিবগঞ্জ থানায় জিডি করেন তিনি। 

এদিকে নিখোঁজ হওয়ার পর রুবেলও লাপাত্তা হয়ে যায়। এক পর্যায় গ্রামের লোকজন রুবেলকে গত ৯ সেপ্টেম্বর লালমনিরহাট থেকে ধরে গ্রামে নিয়ে আসেন। পরে পুলিশ তাকে থানায় নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে রুবেল স্বীকার করেন যে তারা তিনজন মিলে মোফাজ্জল হোসেনকে মোকামতলা থেকে অপহরণ করে ঢাকার আশুলিয়ায় নিয়ে যায়। সেখানে আশুলিয়া মরাগাং নামক কাঁশবনে গলা কেটে হত্যার পর মরদেহ ফেলে রাখা হয়েছে। তাঁর স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ১০ সেপ্টেম্বর শিবগঞ্জ থানা-পুলিশ আশুলিয়া থানা-পুলিশের সহযোগিতায় কাশবন থেকে নিখোঁজ মোফাজ্জল হোসেনের গলিত মরদেহ উদ্ধার করে। 

স্ত্রী রাশেদা আরও জানান, রুবেল আমার স্বামীকে জ্বীনের বাদশার টাকা দেওয়ার কথা বলে ঢাকায় ডেকে নিয়ে হত্যা করেছে। বহু কষ্টে ধার দেনা করে আমরা টাকা জোগাড় করে তাকে দিয়েছিলাম। 

শনিবার দুপুরে শিবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিরাজুল ইসলাম মরদেহ উদ্ধার ও তিনজনকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

    দুর্গাপুরে তরুণীকে আটকে রেখে দেহব্যবসা, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

    দুর্গাপুরে তরুণীকে আটকে রেখে দেহব্যবসা, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

    নাটোরে যুবলীগের বর্ধিত সভায় চেয়ার ছোড়াছুড়ি

    নাটোরে যুবলীগের বর্ধিত সভায় চেয়ার ছোড়াছুড়ি

    হাসপাতালে প্রাথমিক  চিকিৎসা শেষে ফের থানায় রাসেল 

    হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ফের থানায় রাসেল 

    নিখোঁজের পর চাচার ঘরের গর্ত থেকে মিলল শিশুর মরদেহ, চাচি গ্রেপ্তার

    নিখোঁজের পর চাচার ঘরের গর্ত থেকে মিলল শিশুর মরদেহ, চাচি গ্রেপ্তার

    হারিয়ে যাচ্ছে লাঙল-জোয়ালের হালচাষ

    হারিয়ে যাচ্ছে লাঙল-জোয়ালের হালচাষ

    মহেশপুরে ইজি বাইক চালককে পিটিয়ে হত্যা

    মহেশপুরে ইজি বাইক চালককে পিটিয়ে হত্যা

    প্রতিবেশী দুই পক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে বৃদ্ধা নিহত

    প্রতিবেশী দুই পক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে বৃদ্ধা নিহত

    দুর্গাপুরে তরুণীকে আটকে রেখে দেহব্যবসা, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

    দুর্গাপুরে তরুণীকে আটকে রেখে দেহব্যবসা, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

    নারী শিক্ষার্থী ছাড়াই চালু হচ্ছে আফগানিস্তানের মাধ্যমিক স্কুল

    নারী শিক্ষার্থী ছাড়াই চালু হচ্ছে আফগানিস্তানের মাধ্যমিক স্কুল

    দুর্নীতির মামলায় বিচারের মুখোমুখি হতে যাচ্ছেন সু চি 

    দুর্নীতির মামলায় বিচারের মুখোমুখি হতে যাচ্ছেন সু চি 

    জঙ্গি নয় সেদিন নিহত হন ১০ বেসামরিক আফগান নাগরিক 

    জঙ্গি নয় সেদিন নিহত হন ১০ বেসামরিক আফগান নাগরিক 

    নাটোরে যুবলীগের বর্ধিত সভায় চেয়ার ছোড়াছুড়ি

    নাটোরে যুবলীগের বর্ধিত সভায় চেয়ার ছোড়াছুড়ি