Alexa
রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩

সেকশন

epaper
 

বাড়ি নির্মাণকাজের জন্য চাঁদা না দেওয়ায় আইনজীবীকে জখম

আপডেট : ২২ জানুয়ারি ২০২৩, ১৯:০২

রাজশাহীতে ‘চাঁদাবাজদের’ হামলায় আহত আইনজীবী জাহিদুল ইসলাম জাহিদ। ছবি: আজকের পত্রিকা রাজশাহীতে বাড়ি নির্মাণকাজের জন্য দাবি করা চাঁদা না দেওয়ার কারণে জাহিদুল ইসলাম জাহিদ নামের এক আইনজীবীকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। গতকাল শনিবার রাতে মহানগরীর ডিঙ্গাডোবা ঘোষমহাল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ফরহাদ নামের একজনকে ধাওয়া দিয়ে আটক করেন প্রতিবেশীরা এবং পরে তাঁকে পুলিশে দেওয়া হয়। আহত আইনজীবী জাহিদুল ইসলাম জাহিদ এখন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। 

এ নিয়ে জানতে চাইলে আইনজীবী জাহিদুল ইসলাম বলেন, ‘ডিঙ্গাডোবা ঘোষমহাল এলাকায় তাদের বাসার দ্বিতীয় তলার নির্মাণকাজ চলছে। বাড়ি নির্মাণের কাজ শুরু হলেই এলাকার রিকু, রকি, আনোয়ার ও নাজমুল এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় তাঁরা কাজে বাধা দিচ্ছিল। পরে তাঁরা শ্রমিকদের হুমকি দিতে শুরু করে। যেন তাঁরা এই কাজে না আসেন। চাঁদা না দেওয়ায় শেষপর্যন্ত তাঁরা রড-সিমেন্টে নিয়ে গিয়ে বিক্রি করে চাঁদার টাকা তোলা হবে বলে হুমকি দেয়। 

আইনজীবী জাহিদুল ইসলাম আরও বলেন, এরপর গত ১৮ জানুয়ারি রাতে এই চাঁদাবাজেরা বাড়ির সীমানা প্রাচীর টপকে ছাদে ওঠে। এরপর সেখানে থাকা প্রায় এক টন রড নিয়ে যায়। এ ঘটনায় গত ১৯ জানুয়ারি রাজপাড়া থানায় একটি মামলা করি। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে গতকাল শনিবার রাত ৮টার দিকে আবারও তাঁরা ছাদে উঠে রড নিয়ে যেতে শুরু করে। এ সময় প্রতিবেশীদের ধাওয়ায় ফরহাদ নামের একজন ধরা পড়ে। এ ঘটনার আধা ঘণ্টা পরে আনোয়ারের নেতৃত্বে ১০ থেকে ১৫ জন আমার বাড়ির সামনে আসেন। আমাকে বেধড়ক পেটানো হয়। অস্ত্র দিয়ে মাথায় আঘাত করা হয়েছে। এ সময় ৯৯৯-এ কল দিলে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ এসে আমাকে উদ্ধার করে।’

স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ডিঙ্গাডোবা ঘোষমহাল, পার্শ্ববর্তী দাশ পুকুর, বহরমপুর এবং ব্যাংক কলোনি এলাকায় কেউ বাড়ি নির্মাণ করতে গেলেই একটি চাঁদাবাজ চক্রকে টাকা দিতে হয়।

চাঁদা না দিলে নির্যাতন করা হয়। তাদের ভয়ে কেউ মুখ খোলার সাহস পান না। এই চাঁদাবাজ গ্রুপটির বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসা এবং সেবনেরও অভিযোগ রয়েছে। তাদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধে মহানগরীর বিভিন্ন থানায় হাফ ডজন করে মামলা রয়েছে। সম্প্রতি মহানগরীর পোস্টাল একাডেমি এলাকায় চার পান ব্যবসায়ীর ৩২ লাখ টাকা ছিনতাই হয়।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে নগরীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএসএম সিদ্দিকুর রহমান বলেন, ‘আইনজীবী জাহিদ রড নিয়ে যাওয়ার পর একটি মামলা করেছেন। এর মধ্যে একজন গ্রেপ্তার হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। শিগগিরই তাঁদের গ্রেপ্তার করা হবে।’ 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে তামার তার চুরির সময় আটক ২ 

    ভুয়া কাগজ বানিয়ে বাসা দখলের অভিযোগ আ. লীগ নেত্রীর বিরুদ্ধে

    দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাকে ধাক্কা, মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু

    বাকৃবি সাংবাদিক সমিতির সভাপতি আশিক, সম্পাদক আতিক

    শুধু সেলফি না, একতারা মার্কায় ভোটটা দিয়েন: হিরো আলম

    শেখ হাসিনাকে বরণে প্রস্তুত রাজশাহী

    এবং বই-এর পঞ্চম বর্ষপূর্তিতে আনন্দ সম্মিলন

    উপশাখা ব্যবসার উন্নয়নে ইসলামী ব্যাংকের সম্মেলন 

    রেমিট্যান্স গায়েব করেছিলেন তারেকের সাবেক পিএস: সিআইডির দাবি

    সরকারই ভোজ্যতেল ও চিনি আমদানিতে নামছে

    ৮৩ হাজার কর্মী নেবে ইতালি, সুযোগ পাবেন বাংলাদেশিরাও

    বার কাউন্সিল সভায় বাগ্‌বিতণ্ডায় জড়ালেন বিএনপি-আওয়ামীপন্থী আইনজীবীরা