Alexa
রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩

সেকশন

epaper
 

৯ম ওয়েজবোর্ড বাস্তবায়নে এক মাসের আল্টিমেটাম ডিইউজের

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২২, ২১:৫৬

সংবাদমাধ্যমের চলমান সংকট সমাধানে আল্টিমেটাম। ছবি: আজকের পত্রিকা  ৯ম ওয়েজবোর্ড বাস্তবায়নসহ সংবাদমাধ্যমের চলমান সমস্যা ও সংকট সমাধানে এক মাসের আল্টিমেটাম দিয়েছে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে)। আজ শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত সমাবেশে এ আল্টিমেটাম দেন ডিইউজে সভাপতি সোহেল হায়দার চৌধুরী। 

বাকি দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে—সাংবাদিকদের ওপর হামলা-মামলা বন্ধ, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের সংশোধন, পেশাদার সাংবাদিকদের অ্যাক্রেডিটেশন কার্ড কমানোর সিদ্ধান্ত বাতিল এবং সাপ্তাহিক ছুটি দুদিন করা। 

ডিইউজে সভাপতি বলেন, সংবাদমাধ্যমে চলমান সমস্যা-সংকট নিরসনে আগামী এক মাসের সময় দিতে চাই। এই সময়ে মধ্যে যদি সমস্যা-সংকট নিরসনে কোনো কার্যকর ও দৃশ্যমান উদ্যোগ দেখা না যায় ডিইউজে আরও কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে। আগামী ২২ নভেম্বর প্রেসক্লাবের সামনে প্রতীকী অনশন কর্মসূচি পালনের ঘোষণাও দেন তিনি। 

সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি ওমর ফারুক বলেন, ‘আমরা আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে সমাধান চেয়েছি। সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের মন্ত্রীদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি। শুধু আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। আমরা বলতে চাই রাজপথে কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য করবেন না। রাজপথের কঠোর কর্মসূচি থেকে যদি অন্য কোনো পরিস্থিতির উদ্ভব হয় তার দায় আপনাদের নিতে হবে।’ 

বিএফইউজের সাবেক সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুল বলেন, ‘আজকে আমরা এখানে দাঁড়িয়েছি অধিকার ও মর্যাদার দাবি নিয়ে। রুটি-রুজির অধিকার দিয়েছে দেশের আইন। মর্যাদা পাওয়ার অধিকার দিয়েছে দেশের আইন। অথচ এই আইন বাস্তবায়ন করা হচ্ছে না। গণমাধ্যম বান্ধব সরকার ও সরকার প্রধান। সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানানোর জন্য প্রেস কাউন্সিল রয়েছে। অথচ দেশের বিভিন্ন আদালতে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে মামলা করা হচ্ছে। এই অবস্থার নিরসন দরকার।’ 

বিএফইউজের মহাসচিব দীপ আজাদ বলেন, সাংবাদিকদের সরকারের মুখোমুখি দাঁড় করাতে একটি চক্র কাজ করছে। পরিস্থিতি ঘোলা করে কোনো পক্ষ যেন ফায়দা নিতে না পারে সে বিষয়ে আমাদের সতর্ক থাকতে হবে। সাংবাদিকদের ন্যায্য দাবি মেনে নিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। 

ডিইউজে সাধারণ সম্পাদক আকতার হোসেন বলেন, একদিকে ওয়েজবোর্ড নেই, অন্যদিকে কথায় কথায় ছাঁটাই করা হচ্ছে। ছাঁটাই করা সাংবাদিকদের ন্যায্য পাওনা বুঝিয়ে দেওয়া হচ্ছে না। আমাদের দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে। আজকের সমাবেশ থেকে আন্দোলনের সূচনা হলো। এসব দাবি বাস্তবায়ন না হলে সাংবাদিকরা আরও কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে বলেও সতর্ক করেন তিনি। 

ডিইউজের সাংগঠনিক সম্পাদক এ জিহাদুর রহমান জিহাদের সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন জাতীয় প্রেসক্লাবের কোষাধ্যক্ষ শাহেদ চৌধুরী, ডিইউজের সাবেক সভাপতি কুদ্দুস আফ্রাদ, ডিইউজের সহসভাপতি মানিক লাল ঘোষ, কোষাধ্যক্ষ আশরাফুল ইসলাম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক রাজু হামিদ, দপ্তর সম্পাদক আমানউল্লাহ আমান, নির্বাহী পরিষদ সদস্য দুলাল খান, আসাদুর রহমান, মহিউদ্দিন পলাশ, সফিকুল করিম, শফিক বাশার, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি নজরুল ইসলাম মিঠু, ডিইউজের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শাজাহান মিয়া, সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আছাদুজ্জামান। সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন ডিইউজের ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক শাকিলা পারভীন, নির্বাহী পরিষদ সদস্য ইব্রাহিম খলিল খোকন, আনোয়ার হোসেন, রেহানা পারভীন, ঢাকা সাব এডিটর কাউন্সিলের সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসান হৃদয় প্রমুখ। 

বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে একটি মিছিল কদম ফোয়ারা প্রদক্ষিণ করে জাতীয় প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে গিয়ে শেষ হয়।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    বার কাউন্সিল সভায় বাগ্‌বিতণ্ডায় জড়ালেন বিএনপি-আওয়ামীপন্থী আইনজীবীরা

    রিজওয়ানা হাসানের গাড়িতে হামলার নিন্দা ৫২ নাগরিকের

    আফগানফেরত মুজাহিদ হাল ধরেছেন হুজির: পুলিশ

    আষাঢ়ে নয়

    যে পথ থেকে ফেরা যায় না

    বিদ্যুতের দাম প্রতি মাসে সমন্বয় করা হবে: নসরুল হামিদ

    ভূমির কারণেই সংখ্যালঘুরা বেশি নির্যাতিত হচ্ছে: কর্মশালায় বক্তারা

    ভোটের মাঠে

    নৌকার দুর্গে নীরব বিএনপি

    নওগাঁ থেকে শেখ হাসিনার জনসভায় যোগ দিতে বাস-ট্রাকে নেতা-কর্মীরা

    জমে উঠেছে সাকিব-মাশরাফি-ইমরুলের প্রতিযোগিতা

    গ্রিক প্রতিশোধ না জোকারের হাসি

    শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করতে রাত জেগে অপেক্ষা করেছেন আফরোজা

    টিভিতে আজকের খেলা (২৯ জানুয়ারি ২০২৩, রোববার)