Alexa
রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩

সেকশন

epaper
 

জানালেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক

গম ও ভুট্টা চাষে ঋণ মিলবে সহজ শর্তে

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২২, ১৫:২৮

গম ও ভুট্টা চাষে ঋণ মিলবে সহজ শর্তে গম ও ভুট্টা মানুষের খাদ্য ছাড়াও প্রাণী ও মাছের খাবার তৈরিতে ব্যবহৃত হচ্ছে। যার ফলে এ দুটি শস্যের চাহিদা বেড়ে গেছে। দেশে এই চাহিদার অধিকাংশই পূরণ করা হয় আমদানি করে। তবে এখন বৈদেশিক মুদ্রার সংকট রয়েছে। তাই খাদ্য উৎপাদন বিশেষ করে গম ও ভুট্টার চাষ জোরদার এবং ক্ষুদ্র ব্যবসার উদ্যোক্তা তৈরিতে সহজ শর্তে ঋণ দেওয়া হবে।

গতকাল শুক্রবার বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক (ঋণ বিতরণ) আওলাদ হোসেন চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন।

আওলাদ হোসেন গতকাল বেলা ১১টার দিকে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে ‘খাদ্য উৎপাদন জোরদার ও ক্ষুদ্র ব্যবসায়ে উদ্যোক্তা তৈরিতে উদ্বুদ্ধকরণ ও মতবিনিময় সভা’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে যোগ দেন। উপজেলার বিলুপ্ত দাসিয়ারছড়া ছিটমহলের কালিরহাট কমিউনিটি রিসোর্স সেন্টারে এ অনুষ্ঠান হয়।

অনুষ্ঠানে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক বলেন, কৃষক ও উদ্যোক্তারা ঘরে বসেই ঋণসুবিধা পাবেন। এসব ফসল (গম ও ভুট্টা) উৎপাদনে ৪ ভাগ সুদে ঋণ দেওয়া হবে। নারীদের স্বাবলম্বী করতে সহজ শর্তে ঋণ বিতরণ করা হবে। ১০ টাকায় অ্যাকাউন্ট খুলে এসব সুবিধা পাওয়া যাবে। ভালো নাগরিক, ভালো ভোটার ও ভালো মানুষ হলে রাষ্ট্র আপনাদের পাশে আছে।

এ সময় বাংলাদেশ ব্যাংক ও অন্যান্য আর্থিক প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা আওলাদ হোসেনের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন। এর আগে তিনি দাসিয়ারছড়ার উন্নয়নে বর্তমান সরকারের সমাপ্ত করা বিভিন্ন প্রকল্প ঘুরে দেখেন।

মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালক আবুল কালাম, মধুসূদন বণিক, রংপুরের নির্বাহী পরিচালক আব্দুল হাকিম, অতিরিক্ত পরিচালক ফজলার রহমান, অগ্রণী ব্যাংকের কুড়িগ্রাম ও লালমনিরহাট অঞ্চলের সহকারী মহাব্যবস্থাপক বাইজিদ মোহাম্মদ আশরাফুজ্জামান, সোনালী ব্যাংকের কুড়িগ্রাম আঞ্চলিক কার্যালয়ের উপমহাব্যবস্থাপক ওয়াহেদুন্নবী ও ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম রব্বানী সরকার।

মতবিনিময় সভায় বক্তারা জানান, বিলুপ্ত ছিটমহল দাসিয়ারছড়ার প্রতি সরকারের বিশেষ নজরদারি রয়েছে। এখানে খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনে ঋণ বিতরণ করা হবে। ২০১৫ সালের পর সাবেক ছিটমহলে আশানুরূপ ঋণ বিতরণ হয়নি।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের নেতৃত্বে দাসিয়ারছড়াসহ সব সাবেক ছিটমহলে শিক্ষা, স্বাস্থ্য, চিকিৎসা, রাস্তাঘাট উন্নয়নসহ নানামুখী নাগরিক সেবা নিশ্চিতে বিশেষ অগ্রাধিকার দিয়ে কাজ করা হচ্ছে। এ ছাড়া পিছিয়ে পড়া মানুষদের এগিয়ে নিতে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি, বয়স্ক, বিধবা, স্বামী পরিত্যক্তা, প্রসূতি ভাতাসহ নানা সামাজিক কর্মকাণ্ডে সরকার সব ধরনের সহযোগিতা করছে।

উল্লেখ্য, ছিটমহল বিনিময়ের ফলে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে থাকা ভারতের ১১১টি ছিটমহল এবং ভারতের অভ্যন্তরে থাকা বাংলাদেশের ৫১টি ছিটমহল দুই দেশের ভূখণ্ডে অন্তর্ভুক্ত হয়। এর মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে থাকা ভারতের সবচেয়ে বড় ছিটমহল দাসিয়ারছড়া বাংলাদেশের সঙ্গে যুক্ত হয়।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    সরকারই ভোজ্যতেল ও চিনি আমদানিতে নামছে

    পড়ে থেকে নষ্ট হচ্ছে কোটি টাকার কোচ

    চিকিৎসার আগে মন ভরে ফুলের সৌন্দর্যে

    এক দশকে আবাদি জমি কমেছে ৬০ শতাংশ

    মেলার ভেতর আরেক মেলা

    ৫০০ হেক্টর অনাবাদি জমিতে ফলবে ফসল

    এবং বই-এর পঞ্চম বর্ষপূর্তিতে আনন্দ সম্মিলন

    উপশাখা ব্যবসার উন্নয়নে ইসলামী ব্যাংকের সম্মেলন 

    রেমিট্যান্স গায়েব করেছিলেন তারেকের সাবেক পিএস: সিআইডির দাবি

    সরকারই ভোজ্যতেল ও চিনি আমদানিতে নামছে

    ৮৩ হাজার কর্মী নেবে ইতালি, সুযোগ পাবেন বাংলাদেশিরাও

    বার কাউন্সিল সভায় বাগ্‌বিতণ্ডায় জড়ালেন বিএনপি-আওয়ামীপন্থী আইনজীবীরা