Alexa
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২

সেকশন

epaper
 

নদীর চর দখল করে ধান চাষ

আপডেট : ০৬ অক্টোবর ২০২২, ১২:২৯

শিবসা নদীর জায়গা দখল করে ধান ও মাছ চাষ করছেন স্থানীয় প্রভাবশালীরা। গতকাল সকালে খুলনার পাইকগাছা পৌর সদরের এলাকায়। ছবি: আজকের পত্রিকা খুলনার পাইকগাছায় শিবসা নদীর চরে আইল দিয়ে ধান ও মাছ চাষের অভিযোগ উঠেছে প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে। দীর্ঘদিন ধরে জমি দখল করে থাকলেও গতকাল বুধবার সকালে তাঁরা পুনরায় সেখানে বাঁধ দিতে যান। জমি দখলে অভিযুক্ত উপজেলার ভিলেজ পাইকগাছা গ্রামের শহিদ সরদারসহ বাকিরা হলেন সোহরাব আলী সরদার, আমিন উদ্দিন সরদার, গনি সরদার ও মমিন সরদার।

এ বিষয়ে শহিদ সরদার বলেন, ‘শিবসা নদীর ভাঙনে আমাদের প্রায় ৩৩ বিঘা জমি চলে যায়। প্রায় ৪০ বছর পর নদীতে চর জাগে। নদীতে বিলীন হওয়া আমাদের ওই জমি দখল করে ধান ও মাছ চাষ করছি। নদীর জায়গা দখল করছি না।’ তিনি আরও বলেন, ‘বর্তমান জরিপে নদীর জায়গা বাদে কিছু জমি আমাদের নামে রেকর্ড প্রস্তুত হয়েছে। বাকি জমি ফিরে পেতে আমরা পাইকগাছা উপজেলা সিনিয়র জজ আদালতে মামলা করেছি।’

পাইকগাছা পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) উপসহকারী প্রকৌশলী রমিত হোসেন বলেন, ‘নদীর ভেতরের জমি আমাদের আওতাধীন নয়। এই জমি খাস খতিয়ানভুক্ত। তারপরও নদীর পানিপ্রবাহ বন্ধ করে জমি দখল করা যাবে না।’ পাইকগাছা পৌরসভার প্যানেল মেয়র শেখ মাহাবুবুর রহমান রঞ্জু বলেন, ‘ইতিপূর্বে আমি কয়েকবার উপজেলা আইনশৃঙ্খলা সভায় বিষয়টি উত্থাপন করেছি; কিন্তু কোনো কাজ হয়নি। এতে শিবসা নদীর চরের জায়গা জবরদখল হয়ে যাচ্ছে।’

এ বিষয়ে পাইকগাছা নাগরিক কমিটির সভাপতি মোস্তফা কামাল জাহাঙ্গীর বলেন, একদিকে শিবসা নদী পলি পড়ে ভরাট হয়ে পানিনিষ্কাশনের পথ বন্ধ হয়ে যাচ্ছে, অন্যদিকে ভরাট হওয়া জায়গা দখলের মহোৎসব শুরু হয়েছে। শুধু পৌর সদরের কাঁচাবাজার এলাকায় নয়, শিবসা ব্রিজ থেকে সোলাদানা খেয়াঘাট পর্যন্ত প্রায় দুই থেকে তিন শ বিঘা জমি দখল হয়ে গেছে।

মোস্তফা কামাল আরও বলেন, ‘এভাবে নদী দখল হওয়ায় এলাকার পানিপ্রবাহের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। আগামী এক বছরের মধ্যে পাইকগাছা পৌর সদরসহ কয়েকটি ইউনিয়ন জলাবদ্ধতার শিকার হবে। আমরা অবৈধ দখলদারের উচ্ছেদে পাইকগাছা-কয়রার সংসদ সদস্য মো. আক্তারুজ্জামান বাবুসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে দাবি জানাই।’

পাইকগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মমতাজ বেগম বলেন, ‘অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে কাজ বন্ধ করে দিয়েছি। নদীভাঙনের জমি সরকারের। এই জমি এভাবে দখল করা যায় না। বাঁধ দেওয়ার কারণে নদীর পানির প্রবাহে বাধা সৃষ্টি হলে তাঁদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’ 

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    টি-ব্যাগে বিশ্বকাপের গল্প

    ফুটবল বিশ্বকাপ

    শেষ আটের দলগুলো কে কেমন

    সড়ক খুঁড়ে উধাও ঠিকাদার

    অবৈধ কয়লা কারখানা গিলছে বনের কাঠ

    পলি নেট হাউস ঘিরে কৃষিতে নতুন স্বপ্ন

    ময়মনসিংহে গ্রেপ্তার ৭৫, বাড়িতে থাকছেন না বিএনপি নেতারা

    ফুটবল বিশ্বকাপ

    রোমাঞ্চকর জয়ে সেমিতে মেসির আর্জেন্টিনা

    বিএনপির সমাবেশ: গোলাপবাগ মাঠেই তৈরী হচ্ছে ব্যানার-ফেস্টুন 

    ফুটবল বিশ্বকাপ

    পদত্যাগ করলেন তিতে

    বিএনপির সমাবেশ: মধ্যরাতেও উজ্জীবিত গোলাপবাগ মাঠ, স্লোগানে সরব নেতা-কর্মীরা

    ফুটবল বিশ্বকাপ

    টাইব্রেকারে ব্রাজিলকে কাঁদিয়ে সেমিফাইনালে ক্রোয়েশিয়া

    কারাগারে কোয়ারেন্টিনে মির্জা ফখরুল ও আব্বাস