Alexa
শনিবার, ১৩ আগস্ট ২০২২

সেকশন

epaper
 

ইভ্যালির রাসেলের মুক্তির দাবিতে আদালত প্রাঙ্গণে মানববন্ধন

আপডেট : ০৬ জুলাই ২০২২, ১৩:০১

 ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোহাম্মদ রাসেলের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন করেছেন ইভ্যালির মার্চেন্ট ও ভোক্তারা। ছবি: আজকের পত্রিকা ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির সাবেক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোহাম্মদ রাসেলের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন করেছেন ইভ্যালির মার্চেন্ট ও ভোক্তারা। আজ বুধবার ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত ভবনের (সিএমএম) সামনে রাস্তায় তাঁরা মানববন্ধন করেন। 

রাসেলের মুক্তির দাবিতে ব্যানার নিয়ে সকাল ১০টায় ৭০০ থেকে ৮০০ ভোক্তা ও মার্চেন্ট অবস্থান নেন। বেলা যত বাড়তে থাকে, ততই গ্রাহকদের উপস্থিতি বাড়তে থাকে। ব্যানারে বিভিন্ন ধরনের স্লোগান লেখা রয়েছে। স্লোগানের মধ্যে রয়েছে, ‘দেশের কল্যাণে দেশীয় স্টার্টআপের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে জনাব রাসেলের মুক্তি চাই’, ‘আমরা রাসেলের মুক্তির দাবিতে এসেছি’। 

মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীদের দাবি, একই আইনে দায়ের করা মামলায় যেহেতু ইতিমধ্যে মোহাম্মদ রাসেলকে জামিন দেওয়া হয়েছে, সেহেতু বাকি দুটি মামলায় তাঁকে অবিলম্বে জামিন দেওয়া হোক। তিনি কারাগারে থাকলে গ্রাহকেরা তাঁদের টাকা ফেরত পাবেন না। বিষয়টি সরকার যেন বিবেচনা করে।

পাভেল নামে মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারী একজন জানান, তিনি ঢাকায় থাকেন। ইভ্যালিতে ৫ লাখ টাকার পণ্যের অর্ডার দিয়েছিলেন। পণ্য এবং টাকা কোনোটি ফেরত পাননি। তিনি বলেন, ‘একমাত্র রাসেল ভাইয়ের মুক্তির মাধ্যমেই আমার টাকা ফেরত পাওয়া সম্ভব। এমনকি তিনি মুক্তি পেলে সব গ্রাহকই তাঁদের টাকা ফেরত পাবেন।’ 

পাভেল আরও বলেন, ‘ইভ্যালির সাবেক চেয়ারম্যান শামীমা ম্যাডাম বলেছেন, রাসেল ভাই মুক্তি পেলে কোম্পানিতে নতুন ইনভেস্টর নিয়োগ করা হবে। তারা গ্রাহকদের সমস্ত পণ্য সরবরাহ করবেন অথবা টাকা ফেরত দেবেন।’ 

ঢাকার রায়েরবাজার থেকে ইমন নামে একজন এসেছেন। তিনি ইভ্যালির অফিস পিয়ন। তিনি জানান, তাঁর স্যারেরা প্রতারণা করেননি। এজন্য তাঁর মুক্তির দাবিতে তিনি এসেছেন। 

ইভ্যালি মার্চেন্ট অ্যান্ড কনজ্যুমারস কো-অর্ডিনেশন কমিটির সমন্বয়ক মো. নাসির উদ্দিন আজকের পত্রিকাকে বলেন, ‘ইভ্যালির সঙ্গে লাখ লাখ গ্রাহক এবং মার্চেন্ট জড়িত। বিনিয়োগকৃত অনেক টাকা তাঁদের আটকে আছে। সাবেক সিইও রাসেল জামিন পেলে তিনি এই ব্যবসা আবার চাঙা করতে পারবেন এবং গ্রাহকেরা তাঁদের টাকা ফেরত পাবেন বলে মার্চেন্ট ও ভোক্তারা মনে করেন।’ 

নাসির উদ্দিন আরও বলেন, ‘ইভ্যালির সাবেক সিইও রাসেলের বিরুদ্ধে দেশের বিভিন্ন স্থানে মামলা হয়েছে। এসব মামলার বেশির ভাগই নেগোশিয়েবল ইন্সট্রুমেন্ট অ্যাক্টের অধীনে চেক প্রতারণার মামলা। সেগুলো জামিনযোগ্য। অন্যদিকে প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে এ পর্যন্ত ১০টি মামলা হয়েছে। এর মধ্যে আটটি মামলায় তিনি ইতিমধ্যে জামিন পেয়েছেন। বাকি দুটি মামলায় জামিন পেলে তিনি মুক্তি পাবেন।’

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
     

    গাজীপুরে শিল্প-কারখানায় এলাকাভিত্তিক সাপ্তাহিক ছুটির তালিকা

    জাবি উপাচার্য প্যানেল নির্বাচনের ফলাফলে শীর্ষে আমির হোসেন 

    গাজীপুরে কাভার্ডভ্যান চাপায় নিহত ১ 

    বাড়ির চারদিকে দেয়াল তুলে ৩ পরিবারের যাতায়াত বন্ধের অভিযোগ

    নাশকতার মামলায় স্বেচ্ছাসেবক দলের ৭ নেতা রিমান্ডে

    ঢামেকে চলছে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কর্মবিরতি, শনাক্ত হয়নি কেউ

    ধর্ষণের অভিযোগে খুবি শিক্ষার্থী গ্রেপ্তার

    প্রথম দক্ষিণ এশীয় হিসেবে ‘মিলেনিয়াম লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন স্থপতি মেরিনা

    মাদারগঞ্জে গ্রাম-বাংলার ঐতিহ্যবাহী ঘোড়া দৌড় প্রতিযোগিতা

    আর্জেন্টিনায় উগ্র সমর্থকদের ক্ষোভের আগুনে পুড়ে ছাই ফুটবলারদের গাড়ি

    দেশে-বিদেশে সর্বত্রই ধিক্কৃত হচ্ছে সরকার: মির্জা ফখরুল

    ভেড়ামারায় ফিলিং স্টেশনে অগ্নিকাণ্ড, নিহত ২