Alexa
মঙ্গলবার, ১৬ আগস্ট ২০২২

সেকশন

epaper
 

উত্তরাঞ্চলের টিকিট এক ঘণ্টায় শেষ, এটাকেই স্বাভাবিক বললেন স্টেশন ম্যানেজার 

আপডেট : ০৩ জুলাই ২০২২, ১৩:০৭

আগামী ৭ জুলাইয়ের অগ্রিম টিকিট জন্য কমলাপুরে টিকিটপ্রত্যাশীদের উপচেপড়া ভিড়। ছবি: আলী হোসেন মিন্টু কমলাপুর রেলস্টেশনে আজ আগামী ৭ জুলাইয়ের অগ্রিম টিকিট বিক্রি করা হচ্ছে। মানুষের লাইন বলে দিচ্ছে এই দিনের টিকিটের চাহিদা কেমন। যাত্রীদের অভিযোগ, এক ঘণ্টার মধ্যেই উত্তরাঞ্চলের সব ট্রেনের টিকিট শেষ হয়ে গেছে। বিশেষ করে লালমনিরহাট, রংপুর ও কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস ট্রেনের টিকিট কোনোভাবেই পাওয়া যাচ্ছে না। তবে কমলাপুর রেলস্টেশনের স্টেশন ম্যানেজার বলেছেন, এটাই স্বাভাবিক।

আজ রোববার সাতটি স্থান থেকে তৃতীয় দিনের মতো অগ্রিম টিকিট বিক্রি করছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। আগামীকাল সোমবার দেওয়া হবে ৮ জুলাইয়ের অগ্রিম টিকিট। 

অগ্রিম টিকিট বিক্রি নিয়ে খুশি আক্তার নামের এক নারী যাত্রী অভিযোগ করে বলেন, ‘রাত থেকে দাঁড়িয়ে থেকেও টিকিট পাচ্ছি না। কিন্তু যাদের একটু লবিং আছে, একে-ওকে ধরে চোখের সামনে দিয়ে কাউন্টার থেকে টিকিট কেটে নিয়ে যাচ্ছে। কিছু বলতে গেলেও পুলিশের সদস্যরা আমাদের কিছু বলতে দিচ্ছেন না, আমাদের সরিয়ে দিচ্ছেন। তাহলে আমরা সাধারণ মানুষ যে গত রাত থেকে অপেক্ষা করছি টিকিটের জন্য, আমাদের পরিশ্রমের কোনো দাম নেই।’ 

আরেক নারী যাত্রী জান্নাতুল নুরি বলেন, ‘রোজার ঈদে দেখেছি লাইনে ৮০ সিরিয়াল পর্যন্ত সবাই টিকিট পেয়েছি। কিন্তু এবার ৩০ নম্বর সিরিয়াল পর্যন্ত যেতেই কাউন্টার থেকে বলা হচ্ছে উত্তর অঞ্চলের টিকিট সব শেষ হয়ে গেছে। কীভাবে এক ঘণ্টার মধ্যে সব টিকিট শেষ হয়ে যায়?’ 

টিকিট না পেয়ে স্টেশন ম্যানেজারের রুমে ক্ষোভ প্রকাশ করতে দেখা যায় হাফিজুল ইসলাম নামের এক যাত্রীকে। টিকিট না পাওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘২৪ ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকার পরে যদি টিকিট না পায় সাধারণ মানুষ, তাহলে টিকিট বিক্রি করে লাভ কী? টিকিটের বিষয়টি সমাধান করতে পারছেন না রেলমন্ত্রী। আমরা প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চাই। টিকিট পাচ্ছি না আবার কিছু বলতে গেলেই পুলিশ-প্রশাসন আমাদের ধাক্কা দিয়ে বের করে দিচ্ছে। কেন, আমরা কি ট্যাক্সের টাকা দেই না? আমাদের সঙ্গে কেন খারাপ ব্যবহার করা হবে? আধা ঘণ্টা-এক ঘণ্টার মধ্যে টিকিট শেষ। এটা বিশ্বাস করা যায় না।’ 

অগ্রিম টিকিট বিক্রি নিয়ে ব্রিফিংয়ে কমলাপুর রেলস্টেশনের স্টেশন ম্যানেজার মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, ‘আজ ঢাকা থেকে সকাল ১০টা পর্যন্ত স্টেশনের কাউন্টারে প্রায় ১২ হাজার ৩০০ টিকিট এবং অনলাইনে ৫ হাজার ৮০০ টিকিট বিক্রি হয়েছে। আজকে ঈদের স্পেশাল ট্রেনের টিকিটও দেওয়া হচ্ছে। যেহেতু ট্রেনের সংখ্যা সীমিত এবং আসন নির্দিষ্ট, ফলে সবাইকে আমরা টিকিট দিতে পারছি না। আজ মোট ২৯ হাজার ৭০০ টিকিটের মধ্যে অর্ধেক কাউন্টারে এবং অর্ধেক অনলাইনে দেওয়া হচ্ছে। একটা ট্রেনের যদি ৮০০ সিট থাকে, তাহলে তার অর্ধেক মানে ৪০০ টিকিট কাউন্টারে দেওয়া হচ্ছে। এখন যেগুলো কাউন্টারে দেওয়া হয় সেখানে নারীদের কাউন্টার, পুরুষের কাউন্টার, যাদের বিশেষ কোটা আছে তাদের কাউন্টার—সব মিলে দুই-তিনটা কাউন্টারে দেওয়া হচ্ছে। তাহলে ৪০০ টিকিট তো খুব অল্প সময়ের মধ্যে শেষ হয়ে যাবে এটাই স্বাভাবিক।’ 

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট শেষ হয়ে যাওয়ার বিষয়ে সহজের জনসংযোগ কর্মকর্তা বলেন, ‘টিকিটের যে চাহিদা, তাতে অনলাইনে দুই মিনিটেও টিকিট শেষ হয়ে যেতে পারে।’

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    পঠিতসর্বশেষ

    এলাকার খবর

     
     

    সাংবাদিকদের ওপর হামলা: ডা. উসমানীর জামিন আবেদন খারিজ

    চকবাজারের আগুন: প্রবাস নয়, স্বপন গেলেন পরলোকে 

    নরসিংদী রেলস্টেশনে তরুণীকে হেনস্তা: গ্রেপ্তার মার্জিয়ার হাইকোর্টে জামিন

    জুট মিলের রোলারে পিষ্ট হয়ে শ্রমিকের মৃত্যু

    সংসদ এলাকায় স্পিকার-ডেপুটি স্পিকারের বাসভবন বৈধ: আপিল বিভাগ

    ক্রেন দুর্ঘটনা: ২২ সেপ্টেম্বর মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ

    রাশিয়া থেকে জ্বালানি তেল কেনার উপায় খুঁজতে বললেন প্রধানমন্ত্রী

    পরমাণু যুদ্ধ হলে দুর্ভিক্ষের মুখোমুখি হবে বিশ্বের ৫০০ কোটি মানুষ 

    ৪০ এসপিকে নির্দেশনা: পরিস্থিতি অস্বাভাবিক হবে, এটা ভেবেই মাঠে নামতে হবে

    রোনালদো চলে গেলে ম্যান ইউনাইটেডে গোল করার কেউ থাকবে না

    সাংবাদিকদের ওপর হামলা: ডা. উসমানীর জামিন আবেদন খারিজ

    চকবাজারের আগুন: প্রবাস নয়, স্বপন গেলেন পরলোকে