Alexa
শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২

সেকশন

epaper
 

বড় জয়ে সিরিজ শুরু বাংলাদেশের

আপডেট : ০৩ মার্চ ২০২২, ১৮:২১

আফগানিস্তানকে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে হারাল বাংলাদেশ। ছবি: বিসিবি সংক্ষিপ্ত সংস্করণের ক্রিকেটে প্রথমবার ঘরের মাঠে আফগানদের বিপক্ষে সিরিজ খেলতে নেমেছিল বাংলাদেশ। আর তাতেই বাজিমাত। লিটনের দায়িত্বশীল ব্যাটিং ও নাসুম আহমেদের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে ৬১ রানের জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। নাসুম এর আগেও অস্ট্রেলিয়ার-নিউজিল্যান্ডকে ঘূর্ণি কাবু করেছিলেন। তবে আফগানদের বিপক্ষে তার কার্যকরী বোলিং বাংলাদেশের জয় সহজ করে দিয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার সিরিজের প্রথম ম্যাচে আগে ব্যাটিং করে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৫৫ রান তোলে বাংলাদেশ। জবাবে নির্ধারিত ওভারের ৫ বল বাকি থাকতেই ৯৪ রানে থামে আফগানরা। ব্যাট হাতে ৬০ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন লিটন, আর বল হাতে ১০ রানে চার উইকেট শিকার করেন নাসুম। ২৯ রানে চার উইকেট শিকার করেন শরিফুলও। 

লড়াইয়ের পুঁজি পাওয়া বাংলাদেশের জন্য সবচেয়ে দুশ্চিন্তার কারণ হতে পারতেন দুই আফগান ওপেনার রহমতউল্লাহ গুরবাজ ও হযরতউল্লাহ জাজাই। বিধ্বংসী হয়ে ওঠার আগেই এই দুই ব্যাটারকে ফিরিয়ে গ্যালারিতে উল্লাসের জোয়ার বয়ে দেন নাসুম আহমেদ। ইনিংসের প্রথম ওভারে শূন্য রানে গুরবাজ ও তৃতীয় ওভারে জাজাইকে (৬) ফেরান তিনি। 

শুধু জাজাইকে নয়, একই ওভারের তৃতীয় বলে দারউইশ রাসুলিকে ফেরান তিনি। অভিষেক ম্যাচে মাত্র দুই রানে ফেরেন এই ব্যাটার। নাসুমের ঘূর্ণিতে তখনো দিশেহারা আফগানরা। নিজের তৃতীয় ওভারে এসে করিম জানাতকেও ফেরান এই স্পিনার। পাওয়ার প্লেতে বাংলাদেশি বোলার হিসেবে ৭ রানে চার উইকেট নেন তিনি। চার ওভারে ১০ রানে বোলিং শেষ করেন এই স্পিনার। 

নাসুম যেখানে শেষ করে গেলেন, সেখান থেকে আফগানদের ম্যাচে ফেরাটা যে কতটা কঠিন তার দেখা মিলে পাওয়ার প্লের পরের ওভারেই। ধীর গতিতে ধাক্কা কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করেন নাজিবউল্লাহ জাদরান ও মোহাম্মদ নবী। তাদের ৩৭ রানের জুটি ভাঙেন সাকিব। ২৬ বলে ২৭ রান করে ফেরেন নাজিবউল্লাহ। আর এরই মধ্য দিয়ে সাদা বলের ক্রিকেটে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ৪০০ উইকেট শিকারের মাইলফলক ছুঁয়ে যায় সাকিবকে। 

উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকার মুখে আফগান অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নবীকে নিজের পরের ওভারেই ফেরান সাকিব। ১৯ বলে ১৬ রান করে সাজঘরের পথ ধরেন এই আফগান অধিনায়ক। তারপরের ওভারে শরিফুলের শিকার হন রশিদ খান। শেষ দুই ব্যাটার কায়েস আহমেদ ও মুজিব উর রহমানকেও ফেরান শরিফুল। 

এর আগে ব্যাট করতে এসে শুরুটা ভালো হয়নি বাংলাদেশের। পাওয়ার প্লেতে দুই ওপেনারকে হারিয়ে খানিকটা চাপে পড়ে বাংলাদেশ। তবে তিনে আসা লিটন দাসের দায়িত্বশীল ৬০ রানের ইনিংসে ভর করে ১৫৫ রানের পুঁজি গড়েছিল বাংলাদেশ। যা দিয়ে মিরপুরের উইকেটে আফগানদের রুখে দেওয়া খুব একটা কঠিন ছিল না বাংলাদেশের।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জার্সিতে ঐতিহ্যের ছাপ

    প্রিমিয়ার লিগের সেপ্টেম্বর সেরা টেন হাগ ও রাশফোর্ড

    হকি খেললে গোলকিপার হতেন সোহান

    ক্রিকেট মাঠে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে দর্শকের মৃত্যু

    ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলতে নিউজিল্যান্ডে যাচ্ছেন নাসিম শাহ

    হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে পাকিস্তানি পেসারের মৃত্যু

    রাশিয়ার পকেটে ইউক্রেনের ১৫ শতাংশ, কোন দিকে যাচ্ছে যুদ্ধ

    চাকরিজীবী ছাত্রলীগ নেতা হলে থাকেন এসি লাগিয়ে

    পুতিনের সমালোচনায় বিদ্ধ পশ্চিমা মূল্যবোধ

    দলের লাগাম থাকছে গান্ধী পরিবারের হাতেই 

    রাশিয়ার কাছে ৪ অঞ্চল হারানোর দিনে ন্যাটোর সদস্য হতে ইউক্রেনের আবেদন 

    ৯ মাস ধরে নিখোঁজ ছায়েদ