Alexa
শনিবার, ১৩ আগস্ট ২০২২

সেকশন

epaper
 

সিদ্ধান্ত হলেও বাস্তবায়ন নেই শব্দদূষণে অতিষ্ঠ মঠবাড়িয়া

আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২, ১৭:১১

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার তুষখালী সড়কে বেসরকারি ক্লিনিকে ডাক্তার বসেন বলে মাইকিং করা হচ্ছে। ছবি: আজকের পত্রিকা  পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় শব্দদূষণে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন পৌরবাসী। প্রতিদিন সকাল থেকে রাত অবধি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মাইকিংয়ের শব্দদূষণে পৌর এলাকা বসবাসের অযোগ্য হয়ে উঠেছে। ডায়াগনস্টিক সেন্টার, কিন্ডারগার্টেন ও ক্যাডেট মাদ্রাসায় ভর্তি, সুলভ মূল্যে পণ্য বিক্রি এমনকি ব্রয়লার মুরগি ও মহিষের মাংস বিক্রির মাইকিংও চলছে। এ ক্ষেত্রে মানা হচ্ছে না কোনো নিয়মনীতি। বিষয়টি মাস তিনেক আগে উপজেলা আইনশৃঙ্খলা মিটিংয়ে উত্থাপিত হলে তৎকালীন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) বশির আহমেদ দুঃখ প্রকাশ করেন এবং মৃত্যু সংবাদ ব্যতিরেকে পৌরসভার অনুমতি সাপেক্ষে সব ধরনের মাইকিং বেলা ২টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত করার জন্য সভায় সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু সে সিদ্ধান্ত আলোর মুখ দেখেনি।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মঠবাড়িয়া পৌর এলাকায় প্রায় ২০টির মতো ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার রয়েছে। প্রতিদিন এ ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলোর মাইকিং প্রতিযোগিতায় চলে। কোন ক্লিনিকে ডিগ্রিধারী ভালো ডাক্তার বসেন এবং কোন ধরনের সুযোগ-সুবিধা দেওয়া হয়, তা নিয়ে দিনভর চলে মাইকিং। এতে ভোগান্তিতে পড়েছেন এলাকাবাসী।

আরামবাগ এলাকার বাসিন্দা ও সাফা ডিগ্রি কলেজের সহকারী অধ্যাপক এ কে সাকিল আহমেদ বলেন, এমন কিছু জিনিসের প্রচার করে যা লজ্জাকর ব্যাপার। এ ধরনের প্রচার এলাকার ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করে। এ ছাড়া দূর-দূরান্ত থেকে আসা অতিথি এবং বিজ্ঞজনেরা এটাকে নিয়ে তিরস্কার করেন। অহেতুক ও অপ্রয়োজনীয় প্রচার বন্ধের জন্য পৌর কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

শহরের ৫৬ নম্বর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাইনুল ইসলাম বলেন, সময় অসময় অযাচিত মাইকিংয়ের শব্দদূষণে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্টসহ বিদ্যালয় চলাকালীন শিক্ষার্থীদের পাঠদানে মারাত্মক অসুবিধায় হয়। এ ছাড়া বাসাবাড়িতেও শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় বিঘ্ন ঘটে।

সরকারি হাতেম আলী মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. রুহুল আমিন ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, শহরে অপ্রয়োজনীয় মাইকিং বন্ধে বিষয়টি উপজেলা আইনশৃঙ্খলা মিটিংয়ে একাধিকবার উত্থাপন করেছি। কিন্তু কোনো কাজ হয়নি।

এ ব্যাপারে মঠবাড়িয়া পৌরসভার সচিব হারুন অর রশিদ বলেন, অযাচিত মাইকিং বন্ধে পৌরসভার পক্ষ থেকে প্রায়ই মেমোরিকার্ড ও ব্যাটারি জব্দসহ জরিমানা করা হয়। তিনি আরও বলেন, এ অযাচিত মাইকিং বন্ধে পৌরসভা থেকে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে। এ ব্যাপারে তিনি সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলোকে সচেতন হওয়ার জন্য আহ্বান জানান।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    জগদ্ধাত্রী একাই এক শ

    বোনদের নিয়ে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা অক্ষয়ের

    তারেক মাসুদ ছিলেন স্বপ্নের নায়ক

    নতুন পরিচয়ে সোহানা সাবা

    বস্তাপ্রতি ২৫০ টাকা বাড়ল চালের দাম

    ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে রুট পারমিট ছাড়া চলছে বাস, বাড়ছে দুর্ঘটনা

    আষাঢ়ে নয়

    তুইও মরবি, আমাদেরও মারবি

    নতুন পরিচয়ে সোহানা সাবা

    তারেক মাসুদ ছিলেন স্বপ্নের নায়ক

    বোনদের নিয়ে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা অক্ষয়ের

    জগদ্ধাত্রী একাই এক শ