Alexa
মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২২

সেকশন

epaper
 

কিশোরগঞ্জের হাওরে দিন দিন বাড়ছে ভুট্টার আবাদ

আপডেট : ১৫ জানুয়ারি ২০২২, ১৬:০১

মিঠামইনের হাওরের ভুট্টার খেত। ছবি: আজকের পত্রিকা কিশোরগঞ্জে ভুট্টার আবাদ বেড়েছে বলে জানিয়েছে জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর। চলতি বছর ১০ হাজার হেক্টরের বেশি জমিতে চাষ হয়েছে ভুট্টা। স্থানীয় কৃষকেরা বলছেন, ভুট্টা চাষ করে লাভ হয় ধান চাষের চেয়ে দুইগুণ বেশি। তা ছাড়া ফসল সংগ্রহ শেষে ভুট্টার গাছ জ্বালানি হিসেবেও ব্যবহার করা হয়। অন্যদিকে, বোরো মৌসুমে ধানের আবাদে খরচ এবং ঝুঁকি দুই বেশি। তাই জেলার কৃষকদের মধ্যে ভুট্টার চাষের জনপ্রিয়তা দিনদিন বাড়ছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণের দেওয়া তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, গত বছর জেলায় ৭ হাজার ৪৬৫ হেক্টর জমিতে ভুট্টার আবাদ হয়েছিল। কিন্তু চলতি বছর নির্ধারিত ১০ হাজার ১০০ হেক্টর জমিতে ভুট্টা চাষের লক্ষ্যমাত্রা অতিক্রম করেছে।

স্থানীয় কৃষকেরা জানান, এক একর জমিতে ভুট্টার চাষ করতে প্রায় ছয় হাজার টাকার বীজ লাগে। জমি চাষ, সেচ ও সার-কীটনাশক বাবদ খরচ হয় আরও ১৮ হাজার টাকা। সব মিলিয়ে এক একর জমিতে ভুট্টার চাষে খরচ হয় ৩৩ হাজার টাকা। একর প্রতি ভুট্টা পাওয়া যায় ৯০ থেকে ৯৫ মন। গত বছর ভুট্টা বিক্রি হয়েছিল গড় ৭০০ টাকা মণ দরে। সেই হিসাবে এক একর জমির ভুট্টায় পাওয়া যাচ্ছে ৬০ থেকে ৬৫ হাজার টাকা। অর্থাৎ প্রতি একরে লাভ ২৭ থেকে ৩২ হাজার টাকা।

মিঠামইন উপজেলার গোপদিঘী ইউনিয়নের কৃষক নিখিল দেব, সোহাগ, মুস্তাকিম ও জহির উদ্দিনের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, চার মাসে ভুট্টা ঘরে তোলা যায়। ডিসেম্বর মাসের প্রথম দিকে ভুট্টার বীজ বপন করতে হয়। মার্চ-এপ্রিল মাসের মধ্যেই ফসল ঘরে চলে আসে। অল্প সময়ে অধিক ফলন পাওয়া যায় এবং লাভজনক। তাই তাঁরা ভুট্টা চাষ করছেন।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক সাইফুল আলম আজকের পত্রিকাকে বলেন, ‘কয়েক বছর আগেও এখানে মাত্র ৫০ হেক্টর জমিতে ভুট্টার আবাদ হতো। অথচ এই বছর দশ হাজার হেক্টরের বেশি জমিতে ভুট্টার আবাদ হয়েছে। বোঝাই যাচ্ছে ভুট্টা চাষে কৃষকদের আর্থিক লাভ হচ্ছে।

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    সন্ত্রাস-নাশকতা বড় গুনাহের কাজ

    প্রশাসনের দিকে অভিযোগের তির নৌকার ১০ প্রার্থীর

    আইভীতেই আস্থা অটুট

    সৌন্দর্য উপভোগ করতে এসে ফসলের ক্ষতি

    মেসিকে টপকে টানা দ্বিতীয়বার ফিফার বর্ষসেরা খেলোয়াড় হলেন লেভানডফস্কি

    করোনার সঙ্গে ইনফ্লুয়েঞ্জা ইউরোপে ‘টুইন্ডেমিক’

    অভিনয়শিল্পী শিমুর বস্তাবন্দী লাশ উদ্ধার

    চীনের নজর মধ্যপ্রাচ্যে বড় চ্যালেঞ্জ যুক্তরাষ্ট্র

    নীলফামারীতে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে দলবদ্ধ ধর্ষণ, যুবক আটক

    আহত শিক্ষার্থীদের চিকিৎসার দায়িত্ব নিল শাবিপ্রবি প্রশাসন