Alexa
শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২

সেকশন

epaper
 

রিভিউ বিতর্কে ১১ বছর আগের ঝাল মেটালেন আজমল 

আপডেট : ১৪ জানুয়ারি ২০২২, ১৬:৩৩

কেপটাউন টেস্টে ডিন এলগারের  মতো  ও ২০১১ সালে শচীন টেন্ডুলকারের এলডব্লুর আউট রিভিউয়ে বাতিল হয়েছিল। ছবি: সংগৃহীত কেপটাউন টেস্টের তৃতীয় দিনে ডিন এলগারের রিভিউ নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। রবিচন্দ্রন অশ্বিনের বলে আম্পায়ার শুরুতে আউট দিলেও রিভিউ নিয়ে বেঁচে যান এলগার। রিভিউতে দেখা যায় বল স্টাম্পের ওপর দিয়ে যাচ্ছে। এমন সিদ্ধান্ত মানতে পারছেন না বিরাট কোহলি-অজিঙ্কা রাহানেরা। এ নিয়ে এবার মুখ খুললেন পাকিস্তানের সাবেক স্পিনার সাঈদ আজমল। 

২০১১ সালের বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে শচীন টেন্ডুলকারের নেওয়া রিভিউর সঙ্গে এলগারের রিভিউয়ের তুলনা করেন আজমল। তিনি বলেন, ‘যখন ২০১১ বিশ্বকাপে শচীন টেন্ডুলকারের আউটটা রিভিউর পর বাতিল হয়েছিল, তখন আমাকে প্রযুক্তির ওপর ভরসা রাখতে বলা হয়েছিল। প্রযুক্তি যে নির্ভুল, সে কথাও জানানো হয়। আজকে তারাই আবার বলছে যে প্রযুক্তিতে ত্রুটি আছে এবং তা ভরসাযোগ্য নয়।’ 

কেপটাউনের টেস্টে এলগার যে স্পষ্ট আউট ছিলেন, সে বিষয়ে নিশ্চিত আজমল। তিনি মনে করেন, যার সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটে, একমাত্র সেই বোঝে, ‘আমি ডিন এলগারের রিভিউটা কয়েকবার দেখেছি এবং কোনোভাবেই ওই বলটা স্টাম্পের ওপর দিয়ে যেতে পারে না। এমন একটা নিশ্চিত আউটের সিদ্ধান্ত বিরুদ্ধে গেলে তখন বোঝা যায় এগুলো মেনে নেওয়া কতটা কঠিন। ঠিক আজকে যেমন অশ্বিনের বলটা উইকেটে লাগত, একইভাবে ২০১১ বিশ্বকাপে শচীনকে করা আমার বলটাও স্টাম্পে লাগত।’  

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    অলিম্পিকেও নিষিদ্ধ হতে পারে ভারত

    লর্ডসে মুখ থুবড়ে পড়ল ইংল্যান্ডের ‘বাজবল’ ক্রিকেট  

    নতুন দুই লিগে চুক্তিবদ্ধ মঈন বিপিএলে অনিশ্চিত

    রাজার পরিবর্তে আমিরাতের নেতৃত্বে রিজওয়ান

    কাতার বিশ্বকাপের ২৪ লাখ টিকিট বিক্রি শেষ

    শ্রীরাম প্রধান কোচ নন, টেকনিক্যাল পরামর্শক, জানালেন পাপন

    অলিম্পিকেও নিষিদ্ধ হতে পারে ভারত

    ভোলার গ্যাস নিয়ে বড় পরিকল্পনায় সরকার

    দাম্মামে ফ্রেন্ডস অব বাংলাদেশ আ. লীগের শোক দিবস পালিত 

    কুমিল্লায় কাভার্ডভ্যানের চাপায় স্বেচ্ছাসেবক দল নেতার মৃত্যু

    রুশদির ওপর হামলায় ইমরান খানের নিন্দা

    ফেসবুক লাইভে এসে নিজের দুর্দশার কথা জানালেন এক প্রবাসী