Alexa
মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২২

সেকশন

epaper
 

বালুর ট্রাকে সড়কের সর্বনাশ

আপডেট : ১৪ জানুয়ারি ২০২২, ১০:১৮

মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানে সড়কের ক্ষতি করছে বালুভর্তি ড্রাম ট্রাক। ছবি: আজকের পত্রিকা মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানে তিনটি ফসলি জমি ভরাটের কাজে নিয়োজিত ড্রাম ট্রাক চলাচল করায় হুমকির মুখে পড়েছে কোটি টাকার রাস্তা। উপজেলার রশুনিয়া ইউনিয়নের তাজপুর গ্রামের শংকর ডাক্তারের বাড়ির পাশে এ ভরাটের কাজ চলছে।

কোনো প্রকার নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করেই চলছে এ ভরাট কাজ। রাস্তার বিভিন্ন স্থানে বালু পড়ার কারণে যাতায়াতে ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন সাধারণ মানুষজন।

সরেজমিনে দেখা যায়, তাজপুর এলাকার শংকর ডাক্তারের বাড়ির পাশে প্রায় দেড় একর ফসলি জমি ভরাট করছেন ঠিকাদার শাজাহান। উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে ড্রাম ট্রাকের মাধ্যমে বালু এনে ভরাট করা হচ্ছে। ফলে শ্রীনগর উপজেলার বীরতারা থেকে সিরাজদিখান উপজেলা যাতায়াতের প্রধান সড়কটি পড়েছে ব্যাপক হুমকির মুখে। এতে সড়কটির বিভিন্ন স্থানে ফাটল ও ভাঙন দেখা দিয়েছে। এ ছাড়া ড্রাম ট্রাকে আনা বালু রাস্তার ওপরে এসে পড়ায় অটোরিকশা ও মোটরসাইকেলে ঘটতে পারে যে কোনো দুর্ঘটনা। আর সাধারণ মানুষজনের ভোগান্তি তো রয়েছেই। সংশ্লিষ্ট দপ্তরে জানানো হলেও এর কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছে না তাঁরা বলে জানান এলাকাবাসী।

তাজপুর এলাকার বাসিন্দা ইয়াকুব আলী বলেন, ‘এ রাস্তা দিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত অর্ধশত বালুর গাড়ি চলাচল করে। এতে করে রাস্তার বিভিন্ন স্থানে ফাটল দেখা দিয়েছে। তাই প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।’

এ বিষয়ে ঠিকাদার শাজাহান ব্যাপারী বলেন, ‘আমরা অনুমতি এনে মাটি ভরাট করছি। আপনার যদি জানতে ইচ্ছা করে তবে ভূমি কর্মকর্তার থেকে জেনে নিয়েন। আর রাস্তা দিয়া বড় গাড়ি চললে একটু ক্ষতি তো হবেই।’

এ বিষয়ে রশুনিয়া ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা আলমগীর সোলাইমান বলেন, ‘আমি কিছুদিন আগে বিষয়টি জানতে পেরে ঘটনাস্থলে গিয়ে তাঁদের নিষেধ করে এসেছি।’

মন্তব্য

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
 
    সব মন্তব্য

    ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

    এলাকার খবর

     
     

    সন্ত্রাস-নাশকতা বড় গুনাহের কাজ

    প্রশাসনের দিকে অভিযোগের তির নৌকার ১০ প্রার্থীর

    আইভীতেই আস্থা অটুট

    চীনের নজর মধ্যপ্রাচ্যে বড় চ্যালেঞ্জ যুক্তরাষ্ট্র

    নীলফামারীতে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে দলবদ্ধ ধর্ষণ, যুবক আটক

    আহত শিক্ষার্থীদের চিকিৎসার দায়িত্ব নিল শাবিপ্রবি প্রশাসন

    সৌদি আরবে পাওয়া গেল ৪৫০০ বছর আগের মহাসড়ক

    ‘আপনার সার্ভিসের আর প্রয়োজন নেই’, শিক্ষকদের অব্যাহতির চিঠি

    বিএসআরএম কারখানায় ৩ শ্রমিক বিদ্যুতায়িত