জনপ্রিয় সামাজিক মাধ্যম টুইটারের সহ-প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রধান নির্বাহী জ্যাক ডরসির টুইটার অ্যাকাউন্ট কিছু সময়ের জন্য হ্যাক করা হয়েছে। চাকলিং স্কোয়াড নামের একটি গ্রুপ ডরসি ওই অ্যাকাউন্টটি হ্যাক করেছে বলে দাবি করেছে।

ওই অ্যাকাউন্টের অনুসারী প্রায় ৪০ লাখ। হ্যাক করার পর প্রায় ১৫ মিনিট ধরে তীব্র আপত্তিকর ও বর্ণবাদী টুইট করা হয়েছে ডরসির অ্যাকাউন্ট থেকে। এই ঘটনায় টুইটারের তরফ থেকে বলা হয়েছে, তাদের সিস্টেমের কোনো ত্রুটির কারণে এমনটা ঘটেনি। বেনামী একটি মোবাইল অপারেটর ব্যবহার করে এই হ্যাকিংয়ের ঘটনা ঘটেছে বলে সংস্থাটির তরফ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে।

এক বিবৃতিতে টুইটারের তরফ থেকে বলা হয়েছে, ওই অ্যাকাউন্টের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট মোবাইল নম্বরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা ভেঙে হ্যাকাররা এমন কাজ করতে সক্ষম হয়েছে।

এতে বেনামী কাউকে মোবাইল নম্বরের নিয়ন্ত্রণ দেয়া হয়েছিল এবং সে এই সুযোগে ক্ষুদে-বার্তা ব্যবহার করে সরাসরি টুইট করতে পেরেছে। তবে এই সমস্যার সমাধান করা সম্ভব হয়েছে বলে উল্লেখ করেছে টুইটার।

সংস্থাটির একটি সূত্র বিবিসিকে জানিয়েছে, হ্যাকাররা সিমসোয়াপিং (সিমজ্যাকিং) পদ্ধতি ব্যবহার করে ডরসির অ্যাকাউন্টের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছিল। এই পদ্ধতিতে সুনির্দিষ্ট কোনো ফোন নম্বর নতুন সিমে স্থানান্তর করা যায়। যেমনটা ডরসির অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে করা হয়েছে। সাধারণত মোবাইল অপারেটরের কোনো কর্মীকে ফাঁদে ফেলে বা ঘুষ দিয়ে এমন কাজ করা হয়ে থাকে।