সুনামগঞ্জে পৃথক অভিযান চালিয়ে মোট ১৬ কেজি গাঁজাসহ ৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। উদ্ধারকৃত গাঁজার আনুমানিক মূল্য প্রায় ১ লাখ ৬০ হাজার টাকা।

পুলিশ জানিয়েছে দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বিশেষ অভিযান চালিয়ে ১২ কেজি গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়। তারা হলেন- দক্ষিণ সুনামগঞ্জের গাজীনগর গ্রামের তৈয়ব আলীর ছেলে আমির আলী ও মুজিবুর রহমানের ছেলে নুর বিলাস।

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার পুলিশ জানিয়েছে, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সোমবার সকালে এসআই জয়নাল আবেদীনের নেতৃত্বে সিলেট-সুনামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কের সদরপুর পয়েন্টে তারা অভিযান চালায়।

এ সময় গাড়িতে করে গাঁজার একটি চালান নিয়ে সিলেট থেকে দিরাই যাওয়ার পথে দুই ব্যক্তিকে আটক ও ১২ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়। যার আনুমানিক মূল্য ১ লাখ ২০ হাজার টাকা। আটকৃতদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা হয়েছে।

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ হারুনুর রশীদ চৌধুরী এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অপরদিকে সোমবার এনএসআইয়ের সহকারি পরিচালক মো. রফিকুল ইসলামের সুনির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে সদর উপজেলার রাধানগর এলাকার শাহজালাল ফামের্সির সামনে থেকে ২ জন এবং আব্দুর জহুর সেতুর পূর্ব-পশ্চিম টোল প্লাজা থেকে আরও ২ জনকে গাঁজাসহ আটক করা হয়।

আটকৃতরা হলেন- সুনামগঞ্জের বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার সালুকাবাদ ইউনিয়নের মহুগড়া গ্রামের মৃত আসন আলীর ছেলে বাবুল মিয়া (৩২) ও সাত্তার মিয়ার ছেলে জাহাঙ্গীর আলম (১৯), একই উপজেলার সালুকাবাদ ইউনিয়নের আমড়াগড়া গ্রামের আব্দুল হেকিমের ছেলে মো. মুক্তার হোসেন (২৬) ও মৃত ফজলুল হকের ছেলে মো. হালাল মিয়া (২২)। এ ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের সংশ্লিষ্ট ধারায় মামলা হয়েছে।

এ ব্যপারে জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অফিসের সহকারি পরিচালক সাজেদুল হাসান বলেন, এনএসআইয়ের দেয়া তথ্যমতে আমরা সোমবার দুই স্থানে অভিযান চালিয়ে চার কেজি গাঁজাসহ ৪ জনকে আটক করেছি। তাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।

-আজকের পত্রিকা/সুনামগঞ্জ