মরদেহ। প্রতীকী ছবি

সাতক্ষীরায় পাটকেলঘাটা থানার অভয়তলা এলাকায় জুতা ব্যবসায়ী রেজাউল ইসলামের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সন্ধ্যায় একটি পাটক্ষেত থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত জুতা ব্যবসায়ী রেজাউল ইসলাম (৪০) পাটকেলঘাটা থানার অভয়তলা গ্রামের ইয়াকুব শেখের ছেলে।

পাটকেলঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল ইসলাম রেজা জানান, পাটকেলঘাটা থানার বাহাদুরপুর বাজারে রেজাউলের একটি জুতার দোকান রয়েছে। রোববার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে দোকান বন্ধ করে আর বাড়িতে ফেরেনি। পরিবারের লোকজন তাকে রাতে বাড়ি ফিরে না আসায় সোমবার সকাল থেকে খোঁজাখুজি করতে থাকে।

এক পর্যায়ে সন্ধ্যায় তার মরদেহ পাটক্ষেতে পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়। ঘটনাস্থল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা করেছে। নিহতের মাথায় আঘাতের চিহৃ আছে বলে ওসি জানান।

তিনি বলেন, তাকে হত্যা করে মরদেহটি পাটক্ষেতে ফেলে দেওয়া হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি। তবে কি কারণে হত্যা করা হয়েছে সেটি এখনো জানা যায়নি। হত্যার রহস্য উন্মোচন ও হত্যাকারীদের শনাক্তে মাঠে কাজ করছে পুলিশ।

তবে হত্যার কারণ হিসেবে জুয়া খেলায় বিরোধ জানিয়ে নিহতের চাচা স্থানীয় কুমিরা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান শেখ আজিজুর রহমান জানান, রেজাউলের জুয়া খেলা অভ্যাস ছিল। রাতে জুয়া খেলার সময় জুয়াড়িদের সাথে মনোমালিন্যের কারণে এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে বলে মনে হয়।

বৈশাখী/সাতক্ষীরা