দায়িত্ব অবহেলার কারণে ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে দুদক। ছবি: সংগৃহীত

আপত্তিকর ভাষায় সাংবাদিককে নোটিশ পাঠানো দূর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কর্মকর্তা শেখ মো. ফানাফিল্যাকে শোকজ করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য।

ওই আপত্তিকর নোটিশ পাঠানোর বিরুদ্ধে ২৬ জুন বুধবার সকাল থেকে দুদক কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন সাংবাদিকরা। এর পরিপ্রেক্ষিতে বিক্ষোভরত সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা। ওই সময় তিনি জানান, দুই সাংবাদিককে পাঠানো চিঠি দুই রকম ভাষা ব্যবহারের বিষয়টি কমিশনের নজরে এসেছে।

কমিশন ফানাফিল্যার দায়িত্ব অবহেলার কারণে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে বলেও জানান প্রণব কুমার। এছাড়া কেন ওই দুই চিঠির ভাষা দু রকম হলো, তা জানাতেও তাকে কারণ দর্শনোর নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

২৬ জুন বুধবার সকাল থেকে দুদক কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন সাংবাদিকরা। ছবি: আজকের পত্রিকা

উল্লেখ্য প্রকাশিত প্রতিবেদনের ব্যাপারে বক্তব্য দিতে আপত্তিকর ভাষায় দুই সাংবাদিককে নোটিশ পাঠিয়েছিলেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কর্মকর্তা শেখ মো. ফানাফিল্যা। নিউজ পোর্টাল বাংলা ট্রিবিউনের বিশেষ প্রতিনিধি দিপু সারোয়ারকে পাঠানো নোটিশটিতে বলা হয়, ‘দুদকের পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছিরের বিরুদ্ধে ডিআইজি মিজানুর রহমানের কাছ থেকে ৪০ লাখ টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ প্রসঙ্গে আপনার সাক্ষ্যগ্রহণ ও শ্রবণ একান্ত প্রয়োজন। উল্লিখিত অভিযোগের বিষয়ে আগামী ২৬ জুন তারিখ ১০.৩০ ঘটিকায় নিম্নস্বাক্ষরকারীর কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে বক্তব্য প্রদানের জন্য আপনাকে অনুরোধ করা হল। অন্যথায় আইনানুগ কার্যধারা গৃহীত হবে।’

‘অন্যথায় আইনানুগ কার্যধারা গৃহীত হবে’ এ অংশটি নিয়ে ঘোর আপত্তি জানিয়ে বুধবার সকাল থেকেই দুদকের ফটকের সামনে প্রতিবাদ জানাচ্ছেন সাংবাদিকরা।

আজকের পত্রিকা/সিফাত