মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসক এসএম ফেরদৌস বলেছেন, সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের সেবা এখন সাধারণ মানুষের দৌরগোড়ায় পৌছে দিতে মাঠ পর্যায়ে প্রশাসন নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

মঙ্গলবার (২৮ জানুয়ারী) জেলার শিবালয় উপজেলার দুর্গম আলোকদিয়া চরে আশ্রয়ন প্রকল্প এলাকায় উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

শিবালয় ইউএনও এএফএম ফিরোজ মাহমুদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে জেলা প্রশাসক আরোও বলেন, ২নং মধ্যনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ রুমের একটি ঘর করে দেয়া হবে।

এছাড়া এক বছরের মধ্যে এলাকায় নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ স্কুলগুলোর আবার নতুন করে ভবণ নির্মাণ করা হবে।

সোলারের মাধ্যমে আশ্রয়ন কেন্দ্রের প্রতিটি ঘরে বিদ্যুৎ সরবরাহের ব্যাবস্থা করা হবে। চিকিৎসার জন্য শিঘ্রই একটি স্যাটেলাইট ক্লিনিক করে দেয়া হবে।

এছাড়া সার্বক্ষণিক প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদানের জন্য স্থানীয় শিক্ষিত দু’জন ছেলে এবং দু’জন মেয়েকে প্রশিক্ষণ দিয়ে দেওয়ার কথা বলেন তিনি। যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন দীর্ঘ সময়ের ব্যাপার। তবে পর্যায়ক্রমে সকল রাস্তা-ঘাটের উন্নয়ন করা হবে।

এই চরে একটি পাওয়ার প্লান্ট নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে। এটি হলে বিদ্যুতের আর কোন সমস্যা থাকবেনা এবং অনেক লোকের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে।

জেলা প্রশাসক বলেন, চরাঞ্চলে বসবাসকারীদেরকে সরকারি সকল সুযোগ সুবিধা প্রদান করা হবে। পাশাপশি নাগরিক হিসেবে সরকারের সকল আইন মেনে চলার আহবান জানান সকলকে। যার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে- সন্তানদের যথাসময়ে ৫বছরের মধ্যে স্কুলে ভর্তি করা, মেয়েদেরকে বাল্য বিয়ে দেওয়া থেকে বিরত থাকা, মাদক, চুরি-ডাকাতি, সন্ত্রাস ও জঙ্গী তৎপরতা রোধে প্রশাসনকে সহায়তা করতে হবে।

দুর্গম চরাঞ্চলের যে কোন ঘটনা-দুর্ঘটনায় সহায়তা পেতে ৩৩৩ (ম্যাজিক) নম্বরে ফোন করলে তাৎক্ষনিক পুলিশ, ফায়ার সার্ভিসসহ নানা ধরনের সহায়তা পাওয়া যাবে।

অপর দিকে, চরমধ্যনগর রুস্তম হাওলাদার মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও অভিভাবক সমাবেশ এবং বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরনী সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে জেলা প্রশাসক বলেন, চলাঞ্চলে অনেক মেধা সম্পূর্ণ ছেলে-মেয়ে রয়েছে।

সরকার এদেরকে বিনা পয়সায় ট্রেনিং দিবে আবার ১শ টাকা করে ভাতাও দিবে। ছেলে-মেয়েদেরকে কারিগরী শিক্ষায় শিক্ষা দিলে দেশ থেকে বেকার সমস্যা দুর হবে। পাশাপাশি দক্ষ জনশক্তিতে পরিণত হবে দেশ।

‘আশ্রয়নের অধিকার, শেখ হাসিনার উপহার’ এ প্রতিপাদ্যে দিন ব্যাপি অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে আশ্রয়ন প্রকল্পে বসবাসরত সুবিধাভোগীদের বিভিন্ন সেবা সংক্রান্ত উঠান ˆবঠক, ভিজিএফের চাল, কম্বল বিতরণ, বৃক্ষরোপন, বিনামূল্যে গবাদি পশুর চিকিৎসা সেবা, প্রাথমিক চিকিৎসা ও ওষুধ বিতরণ, প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন, প্রাথমিক শিক্ষা ও মান উন্নয়ন, ভূমি সংক্রান্ত সেবা, সবজি বীজ ও সার বিতরণ করা হয়।

এছাড়া, চরাঞ্চলে বজ্রপাত, অগ্নিকাণ্ড, ঘুর্ণিঝড় ভূমিকম্প, বন্যাকালীন করনীয় সম্পর্কিত জনসচেতনতা বৃদ্ধি মূলক ক্যাম্পেইনে জেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ মাহবুবুল ইসলাম, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর উপ-পরিচালক আশরাফুজ্জামান, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ গোলাম ফারুক, শিবালয় উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান রুণা আক্তার, তেওতা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের, আলোকদিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. মহিউর রহমান ও ইউপি সদস্য মতিউর রহমান প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

-শাহজাহান বিশ্বাস, মানিকগঞ্জ