দুই কার্যদিবস সামান্য উত্থানের পর বৃহস্পতিবার দেশের শেয়ারবাজারে আবার দরপতন হয়েছে। প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্যসূচকের পতনের সঙ্গে কমেছে লেনদেনে অংশ নেওয়া অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম।

শেয়ারবাজারে দরপতনের প্রতিবাদে গত কয়েকদিনের মতো আজও ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের সামনে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছে বিনিয়োগকারীরা।

বাংলাদেশ পুঁজিবাজার বিনিয়োগকারী ঐক্য পরিষদের ব্যানারে আয়োজিত এ মানববন্ধন থেকে বরাবরের মতো বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান খায়রুল হোসেনের পদত্যাগ দাবি করা হয়।

গতকাল লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের কার্যদিবসের তুলনায় ২ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ১৩০ পয়েন্টে।

অপর দুই সূচকেরও মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক দশমিক ৪৫ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৮২৯ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আর শরিয়াহ সূচক দশমিক ৭৪ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ১৭৬ পয়েন্টে। সব সূচকের পতনের পাশাপাশি বাজারটিতে লেনদেনে অংশ নেয়া অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম কমেছে।

ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ১১১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বাড়ার বিপরীতে কমেছে ২০৪টির।

আজকের পাত্রিকা/আরকে