লালমাটিয়ায় প্রধানমন্ত্রী। ছবি : সংগৃহীত

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের চাচাতো বোন হামিদা খানম রানু আর নেই (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। বুধবার (২৪ এপ্রিল) ভোর সাড়ে ৫টায় রাজধানীর লালমাটিয়ায় নিজের বাসায় তিনি ইন্তেকাল করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭৭ বছর।

ফুফুর মৃত্যুর খবর শুনে তার মরদেহ দেখতে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে লালমাটিয়ায় যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেসময় তিনি পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কিছু সময় কাটান।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের প্রেস উইং জানিয়েছে, হামিদা খানম রানুর মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গভীর দুঃখ ও শোক প্রকাশ করেছেন। তিনি হামিদা খানমের আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন এবং তাঁর শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।

হামিদা খানম রানু বাংলাদেশ ইনস্যুরেন্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি শেখ কবির হোসেনের বোন। তাদের বাবা খান সাহেব শেখ মোশাররফ হোসেন বঙ্গবন্ধুর চাচা ছিলেন। তিনি পূর্ব পাকিস্তানের প্রাদেশিক আইন সভার সদস্য ছিলেন। এছাড়া হামিদা খানমের স্বামী প্রফেসর আইবুর রহমান শিকদার জগন্নাথ কলেজ ও গোপালগঞ্জের রামদিয়া কলেজের সাবেক শিক্ষক।

মৃত্যুকালে হামিদা খানম এক ছেলে ও তিন মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তার একমাত্র ছেলে হামিদুর রহমান শিকদার বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আঞ্চলিক পরিচালক।

আজকের পত্রিকা/এমএআরএস