ডেঙ্গু ভাইরাস বহন করা এডিস মশা। ছবি: সংগৃহীত

শার্শায় পুলিশ ও পুলিশের সোর্সের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগকারী সেই নারী ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার রাতে তিনি যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৷

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, শার্শার গোড়াপাড়া পুলিশের ইনচার্জ এসআই খায়রুল ও পুলিশের সোর্স কামারুলের বিরুদ্ধে ৫০ হাজার টাকা ঘুষ না দেয়ায় ধর্ষণের অভিযোগকারী সেই নারী ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছে। বুধবার ওই নারী যশোর জেনারেল হাসপাতালে রক্ত পরীক্ষা করতে দেন। বৃহস্পতিবার তার রিপোর্টে রক্তে প্লাটিলেট ২লাখ ১০ হাজার দেখা দেয়ায় ডাক্তার তাকে ভর্তি হওয়ার পরামর্শ দেন।

ওই নারী বৃহস্পতিবার রাতেে যশোর জেনারেল হাসপাতালের জরুরী বিভাগে রক্ত পরীক্ষার রিপোর্টসহ উপস্থিত হলে ডাক্তার তাকে চিকিৎসা পত্র দিয়ে মহিলা মেডিসিন ওয়ার্ড ৪ এ ভর্তি করে নেন। যার রেজিষ্ট্রেশন নম্বর ৪৯০৮৯/১৭৪।

ভর্তির পর ডাক্তার ওবায়দুল কাদের উজ্জ্বল তার চিকিৎসা দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন স্টুডেন্ট নার্স শ্রাবণী।
হাসপাতালের ডাক্তার ওবায়দুল কাদের উজ্জ্বল শার্শার লক্ষণপুর গ্রামে সেই নারী ডেঙ্গু রোগী হিসেবে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

হাসপাতালের সেবিকারা জানান, ওই মহিলা ওয়ার্ডে আসার সাথে সাথে সাদা পোষাকে কয়েকজন আগন্তুককে ঘোরাফেরা করতে দেখা যায়।

ইয়ানূর রহমান/বেনাপোল