রাবির ভিসি

কোনো প্রকার বক্তব্য, তথ্য জানতে চাইলে উপাচার্যকে কখনোই তৎক্ষনাৎ পাওয়া যায় না। জন-সংযোগ দপ্তরের মাধ্যম হয়ে যোগাযোগের পর সময় ব্যয় করে উপাচার্যের আংশিক বক্তব্য আসে কিংবা আসেও না অনেক সময়। বৃহঃবার বিকেলে জন-সংযোগ দপ্তরের আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এমনটাই মন্তব্য করেছেন এক সাংবাদিক।

তিনি আরো বলেন, আমরা বা আমি বিভিন্ন সময় গুরুত্বপূর্ণ সংবাদ তৈরির লক্ষ্যে উপাচার্যের বক্তব্য, মন্তব্য, ব্যাখ্যা-বিস্তারিত জানতে চাই বা আশা করি। কিন্তু সরাসরি তার সাথে যোগাযোগ করতে পারি না। যোগাযোগ করতে চাইলে জনসংযোগ কর্মকর্তার কাছে আসতে হয়। তিনি দু-তিনদিন সময় ব্যয় করে বিস্তারিত জানান। কিস্তু এতে সময় পার হয়ে যায় এবং আংশিক জবাব আসে। প্রায়সময়ই কোনো ফিডব্যাক আসেই না।
অভিযোগের প্রেক্ষিতে এছাড়াও একাধিক সাংবাদিক একাত্মতা পোষণ করেন।

এবিষয়ে জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রভাষ কুমার কর্মকার বলেন, আসলে উপাচার্য নানান কাজে বিভিন্ন সময় ব্যস্ত থাকেন। চাইলেও সরাসরি কাউকে সময় দিতে পারেন না। তবে আমার মাধ্যমেই সাংবাদিকরা যোগাযোগ করেন এবং আমি যথাসাধ্য চেষ্টা করি যোগাযোগ করিয়ে দিতে।

এমএ জাহাঙ্গীর/রাবি