‘রেগে গেলেন তো হেরে গেলেন!’ ছবি: সংগৃহীত

পুরোনো একটি প্রবাদ আছে, ‘রেগে গেলেন তো হেরে গেলেন!’ হেরে যান আর না যান, হুট করে রেগে যাওয়ার কারণে কিন্তু অনেক ধরনের বিপদই হতে পারে! অতিরিক্ত রাগ যেমন পরিস্থিতি বিগড়ে দেয়, তেমনই শারীরিক ক্ষতির কারণও হয়ে উঠতে পারে আপনার এই নিয়ন্ত্রণহীন রাগ।

জেনে নিন কীভাবে নিয়ন্ত্রণ করবেন আপনার রাগ-

১। রেগে গেলে সেটা প্রকাশ না করে ১০ থেকে ১ পর্যন্ত গুণতে থাকুন মনে মনে।

২। স্নায়ু শান্ত করার জন্য ব্যায়ামের বিকল্প নেই। রেগে গেলে খানিকক্ষণ হাঁটাহাঁটি করুন।

৩। মস্তিষ্কে অক্সিজেনের সরবরাহ যেন ঠিকমতো হয় সেজন্য বারকয়েক জোরে জোরে শ্বাস টানুন। এতে মস্তিষ্ক অনেকটা রিলাক্স হবে।

৪। হঠাৎ রেগে গেলে কথা বন্ধ করে দিন। রাগের সময় বলে ফেলা কিছু কথা পরিস্থিতি আরও ঘোলাটে করে দিতে পারে। চুপচাপ থেকে নিজেকে সময় দিন।

৫। প্রিয় কোনো বন্ধুর সঙ্গে কথা বলতে পারেন।

৬। রাগ আসলে আকাশের দিকে কিংবা পুকুরের জলের দিকে তাকিয়ে থাকুন, এতে মস্তিস্ক শীতল হয়!

৭। রাগ নিয়ন্ত্রণের আরেকটি উপায় হচ্ছে টাইমার সেট করা। হুট করে রেগে গেলে ঘড়িতে কয়েক মিনিটের টাইমার সেট করে দিন। নিজের সঙ্গে প্রতিজ্ঞা করুন যে এই কয়েক মিনিট আপনি রাগ প্রকাশ করবেন না কোনোভাবেই।

৮। হুট করে রেগে গেলে পানি পান করুন, কিংবা এক গ্লাস পানি নিয়ে সেটার দিকে তাকিয়ে থাকুন।

৯। রাগ প্রকাশ করতে পারেন, তবে সেটা যেন অনিয়ন্ত্রিত না হয়। যুক্তি দিয়ে বুঝিয়ে বলুন কেন আপনি রেগে গেছেন।

আজকের পত্রিকা/মির/সিফাত