ঢাকায় অনুষ্ঠিত হলো ‘ভারত বাংলাদেশ ফিল্মস অ্যাওয়ার্ড’ (বিবিএফএ)। (২১ অক্টোবর) সোমবার রাতে রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরার (আইসিসিবি) নবরাত্রি হলে এ আয়োজনে দুই বাংলার নির্বাচিত সেরা তারকাদের হাতে পুরষ্কার তুলে দেওয়া হয়।

ভারতের জনপ্রিয় নায়িকা ক্যাটাগরিতে ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত ও বাংলাদেশের জয়া আহসান পুরস্কার পেয়েছেন। আর বাংলাদেশের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক ক্যাটাগরিতে পুরস্কার পেয়েছেন শাকিব খান ও ভারতের জিৎ।

এক নজরে পুরস্কার :
সেরা চলচ্চিত্র– বাংলাদেশের ‘দেবী’ ও ভারতের ‘নগর কীর্তন’।
জনপ্রিয় চলচ্চিত্র– বাংলাদেশের ‌পাসওয়ার্ড ও ভারতের বোমকেশ গোত্র।
জনপ্রিয় নায়িকা- ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত ও বাংলাদেশের জয়া আহসান।
সেরা প্রধান চরিত্র– অভিনেত্রী হিসেবে পুরস্কার পেয়েছেন বাংলাদেশের জয়া আহসান ও ভারতের পাওলি দাম।
সিনেমার প্রধান চরিত্র– সেরা অভিনেতা হয়েছেন বাংলাদেশের সিয়াম ও ভারতের প্রসেনজিৎ। পপুলার অ্যাক্টর অব দ্য ইয়ার– বাংলাদেশের শাকিব খান ও ভারতের জিৎ।
শ্রেষ্ঠ পরিচালক- বাংলাদেশের নাসির উদ্দিন ইউসুফ ও ভারতের সৃজিত মুখার্জি।
সেরা স্ক্রিপ্ট রাইটার- বাংলাদেশের ফেরারী ফরহাদ ও ভারতের পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়।
সেরা সিনেমাটোগ্রাফার– বাংলাদেশের কামরুল হাসান খসরু ও ভারতের সৃজিত মুখার্জি।
ভিডিও এডিটর- বাংলাদেশের তৌহিদ হোসেন চৌধুরী ও ভারতের সংলাপ ভৌমিক।
সেরা মিউজিক ডিরেক্টর- বাংলাদেশের হৃদয় খান ও ভারতের বিক্রম ঘোষ।
সেরা প্লে-ব্যাক গায়ক (পুরুষ)- ইমরান ও ভারতের অনির্বান ভট্টাচার্য।
সেরা প্লেব্যাক গায়িকা- বাংলাদেশের যৌথভাবে সোমনুর মনির কোনাল ও ফাতেমাতুজ জোহরা ঐশী ও ভারতের নিকিতা নন্দী।
সেরা পার্শ্ব চরিত্রাভিনেতা- বাংলাদেশের ইমন ও ভারতের অর্জুন চক্রবর্তী।
সেরা পার্শ্ব চরিত্র অভিনেত্রী- বাংলাদেশের জাকিয়া বারী মম ও ভারতে সুদীপ্তা চক্রবর্তী।
বিশেষ জুরি অ্যাওয়ার্ড- বাংলাদেশের তাসকিন রহমান ও বিদ্যা সিনহা মীম এবং ভারতের রুদ্র নীল রায় ঘোষ ও আবীর চ্যাটার্জি ও নবনী।

সার্বিক সহযোগিতায় ছিল ভারতের জি-বাংলা ও বাংলাদেশের ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ।