গণমিছিল করা হয় ইজতেমা বন্ধের দাবিতে

কুমিল্লার মুরাদনগরে সা’দ পন্থীদের জেলা ইজতেমা বন্ধের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সড়ক সড়ক অবরোধ করেছেন মাওলানা জোবায়ের পন্থীরা। ১৮ জুন মঙ্গলবার সকালে উপজেলা সদরের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের মাঠে দেবিদ্বার, হোমনা, তিতাস ও মুরাদনগরের মাওঃ যোবায়ের পন্থী ওলামায়ে কেরাম ও তাবলিগ জামাতের সাথীরা জড়ো হয়।

এসময় মুরাদনগর উপজেলা কওমি মাদরাসার সভাপতি মুফতি দ্বীন মোহাম্মদের নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে উপজেলার বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন শেষে বাখরনগর ইজতেমা মাঠে যাওয়ার পথে রহিমপুর এলাকায় পুলিশের বাধার মুখে কোম্পানীগঞ্জ-হোমনা সড়কে ঘন্টাব্যাপী অবস্থান করে বিক্ষোভ কর্মসূচী পালন করে।

এসময় সড়কে দুই ঘন্টা যান চলাচল বন্ধ থাকে। পরে পুলিশের আশ্বাস পেয়ে মাওলানা যোবায়ের পন্থী ওলামা মাশায়েকগণ অবরোধ প্রত্যাহার করে ।

মুরাদনগর উপজেলা কওমি মাদ্রাসার সভাপতি মাওলানা মুফতি দ্বীন মোহাম্মদ বলেন, কাদিয়ানী সা’দ পন্থীরা বাখরনরর গ্রামে ৩দিন ব্যাপি ইজতেমার প্রস্তুতি চালাচ্ছে। তাই আমরা আমাদের সাথী ভাইদের নিয়ে ইজতেমা অভিমুখে রওনা করেছি সা’দ পন্থীদের ইজতেমা মুরাদনগরের মাটিতে করতে দেয়া হবে না ।

ইতিমধ্যে আমাদের মুরব্বিরা জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি প্রধান করেছেন। তারা আমাদের জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক আলেচনা স্বাপেক্ষে ইজতেমা স্থগিত করার ঘোষনা দিয়েছেন। এসময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, মুফতি মাওঃ আমজাদ হোসাইন, মুফতি সাদেকুল ইসলাম, মাও: হাফেজ আমিনুল ইসলাম, মাওঃ সালমান, মাওঃ মোতালিব খান, মাওঃ গিয়াসউদ্দিন, মাওলানা ইউসুফ প্রমুখ।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) নাহিদ আহাম্মদ জানান, তাবলিক জামাতের দুগ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে, মুরাদনগরে আইন শৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রেনের লক্ষে অতিরিক্ত দু’শ পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

শাকিল মোল্লা, কুমিল্লা