ভোলায় ৪দিন ব্যাপী আয়কর মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে।

রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা পরিষদ চত্বরে মেলার উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মো: মাসুদ আলম ছিদ্দিক।

প্রতিদিন সকাল সাড়ে ৯টা থেকে শুরু হয়ে এ মেলা
বিকাল ৫টা পর্যন্ত চলবে। আগামী ২০ নভেম্বর মেলা শেষ হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে জেলা পরিষদ মিলনায়তনে এক
আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, স্বনিভর অর্থনীতির প্রধান

হাতিয়ার হলো রাজস্ব আদায়। পৃথিবীর যে কোন দেশে
অর্থনীতির গতি চলমান রাখার ক্ষেত্রে আয়করের বিকল্প নেই।

এটি এমন একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে দুর্নীতি কমিয়ে আনা ও সচ্ছতা বজায় রাখা সম্ভব। তাই এ মেলা
করদাতাদের কর প্রদানের ক্ষেত্রে উৎসাহ বৃদ্ধি করে। দেশের উন্নয়নের স্বার্থে নিয়মিত কর প্রদানের জন্য সকল শ্রেণী-পেশার মানুষকে আহবান জানান বক্তারা।

বরিশাল কর অঞ্চলের অতিরিক্ত কর কমিশনার মো: আবুল বাসার আকনের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন, জেলা পুলিশ সুূপার সরকার মো: কায়সার, পৌর মেয়র মো: মনিরুজ্জামান, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম গোলদার, ভোলা প্রেসক্লাব সভাপতি ও বীর মুক্তিযোদ্ধা এম হাবিবুর রহমান, ভোলা সার্কেল ১০ ও ১১ এর সহকারী কর কমিশনার মো: মাসুম বিল্লাহ, আয়কর আইনজীবী

এ্যাভোকেট স্বপন কুমার সাহা ও জেলা জুয়েলার্স মালিক
সমিতির সভাপতি অবিনাশ নন্দী।এবারের মেলায় ১২৫ কোটি টাকা কর আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। আর গত বছর আদায় হয়েছিলো ১১২ কোটি টাকা। মেলায় জনতা ও সোনালী ব্যাংকের  দুটি বুথ রয়েছে। ই-টিআইএন রেজিস্ট্রেশন করার
ব্যবস্থা, হেল্প ডেস্ক, মুক্তিযোদ্ধা, নারী ও সিনিয়র
সিটিজেনদের জন্য আলাদা একটি বুথসহ বিভিন্ন
সেবার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে মেলায়। মেলায় প্রথম দিনই কর প্রদানের জন্য বেশ ভিড় দেখা গেছে।

আবদুল মালেক/ ভোলা