বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার হত্যার বিচার দাবিতে বিক্ষোভ করছেন তার সহপাঠীরা। এ সময় ক্যাম্পাসে বুয়েটের ছাত্রকল্যাণ পরিচালক অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান প্রবেশ করলে বিক্ষোভরত শিক্ষার্থীদের তোপের মুখে পড়েন। ৮ অক্টোবর মঙ্গলবার সকালে বুয়েটের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্বরে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলতেই ক্যাম্পাসে এসেছিলেন ড. মিজানুর রহমান। এ সময় শিক্ষার্থীরা তাকে উদ্দেশ্য করে ‘ভুয়া, ভুয়া, পদত্যাগ, পদত্যাগ’ বলে স্লোগান দিতে থাকেন। এছাড়া আবরারের হত্যার বিষয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন একের পর এক তীরের মতো ছুঁড়তে থাকেন তার উদ্দেশ্যে। ছাত্রদের তোপের মুখে এক সময় পদত্যাগ করবেন বলেও জানান তিনি। শিক্ষার্থীদের দাবিগুলোর বিষয়ে প্রশ্ন করলে তিনি বুয়েটের উপাচার্য অধ্যাপক সাইফুল ইসলামের ওপর চাপিয়ে দেন।

গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময় অধ্যাপক মিজানুর রহমান বলেন, ‘আমার মনে হয় না কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র রাজনীতির কোনো প্রয়োজন আছে। বিশেষ করে বর্তমান প্রেক্ষাপটে। বুয়েটেও নিষিদ্ধ করা উচিত।’

এদিকে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে বুয়েট প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের ৮৫তম ব্যাচ সমর্থন জানিয়ে ক্যাম্পাসে অবস্থান করছে। এর আগে আবরার হত্যার বিচার দাবিতে ৮ অক্টোবর মঙ্গলবার সকাল থেকে সাত দফা দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করেছেন শিক্ষার্থীরা।

আজকের পত্রিকা/সিফাত