গত অক্টোবর থেকে শুরু করেন সালাম’র নিজ উদ্দেগে “সাফিয়া ফাউন্ডেশন ফর এডুকেশনাল ডেভেলপমেন্ট”র কার্যক্রম। প্রথম কার্যক্রম শুরু করেন সালমার স্বামী অ্যাডভোকেট সানা উল্লাহ নুরে সাগর গ্রামের বাড়ী ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট এলাকার থেকে। হালুয়াঘাটে বড়দাস পাড়া এলাকার প্রাথমিক স্কুলে তিন শতাধিক শিশুকে শিক্ষা উপকরণ ও খাদ্যসামগ্রী দিয়ে প্রথম ঘোষনা দেন লালনকন্যা খ্যাত গায়িকা সালাম’।
এবার বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের পাশে দাড়ালেন “সাফিয়া ফাউন্ডেশন ফর এডুকেশনাল ডেভেলপমেন্ট” এর মাধ্যমে। সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুলে ১৬০ জন প্রতিবন্ধী ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী (বিরিয়ানি),স্কুল ব্যাগ ও খাতা কলম বিতরন করে সাফিয়া ফাউন্ডেশন।
সেই সাথে সিরাজগঞ্জ -নাটোরের আদিবাসী সম্প্রদায়ের সংস্কৃতির গান পরিবেশন ও কোমলমতি প্রতিবন্ধী শিশুদের নানান রকমের সাংস্কৃতিক পরিবেশনা ছিলো উপভোগ করার মতো।
সাফিয়া ফাউন্ডেশন সভাপতি মৌসুমী আক্তার সালমা সঙ্গীত শিল্পী সালমা বলেন, ফাউন্ডেশনের সামান্য প্রচেষ্টায় অসহায় প্রতিবন্ধী শিশুদের মুখে এতটা হাসি ফুটবে তা ভাবতে পারেনি। প্রতিবন্ধীরাও মানুষ, সমান ভাবে এগিয়ে চলতে তারাও সক্ষম হবে, যদি আমরা সাহায্যের হাত বাড়াই। আমাদের প্রত্যেকের সামান্য উদ্যোগই পারে অসহায় শিশুদের মুখে হাসি ফুটাতে। চলুন সবাই এগিয়ে যাই। শিক্ষার প্রসার ঘটুক,মনুষত্বের বিকাশ হোক, এবং শিক্ষাই হোক উন্নয়নের হাতিয়ার।
সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত “সাফিয়া ফাউন্ডেশন ফর এডুকেশনাল ডেভেলপমেন্ট” এই কার্জক্রমে উপস্থিত ছিলেন সাফিয়া ফাউন্ডেশন ফর এডুকেশনাল ডেভেলপমেন্ট” এর সভাপতি মৌসুমী আক্তার সালমা (কন্ঠ শিল্পী, সাধারন সম্পাদক অ্যাডভোকেট সানা উল্লাহ নুরে সাগর, সহ সভাপতি আসাদুজ্জামান দিদার , অর্থ সম্পাদক অলি উল্লাহ শুভ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জিয়াউদ্দিন আলম (সাংবাদিক, গীতিকার ও সুরকার ), দপ্তর সম্পাদক মো : অলিউল্লাহ।