বিআরটিসি বাস

সুনামগঞ্জ শহরের ওয়েজখালী বিআরটিসির কাউন্টারে হামলা চালিয়ে এক কর্মীকে মারধর করার অভিযোগ উঠেছে পরিবহন শ্রমিকদের বিরুদ্ধে।

আজ শুক্রবার বিকেলে এ ঘটনা ঘটে। আহত বিআরটিসি কর্মী নূর উদ্দিন সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

মারধরের শিকার বিআরটিসির কর্মী নুর উদ্দিন বলেন, শুক্রবার বিকেলে তিনি শহরের ওয়েজখালীস্থ কাউন্টারে বসে টিকিট বিক্রি করছিলেন। এ সময় হঠাৎ করেই পার্শ্ববর্তী বাস টার্মিনাল থেকে কিছু শ্রমিক এসে কাউন্টারে প্রবেশ করে। কিছু বুঝে উঠার আগেই তারা কাউন্টারে চেয়ারগুলো ছুড়ে ফেলে দেন। বাধা দিতে গেলে তাঁকে মারধর করে শ্রমিকরা। পরে তাঁরা বিআরটিসির বাস বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে চলে যান। পরে পুলিশকে খবর দিলে তারা ঘটনাস্থলে আসে।

বিআরটিসির সিলেট ডিপোর ম্যানেজার মো. জুলফিকার আলী বলেন, কোন কারণ ছাড়াই আমাদের সুনামগঞ্জের কাউন্টারে ঢুকে এক কর্মীকে মারধর করা হয়। বিষয়টি আমরা পুলিশকে জানিয়েছি। প্রশাসনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রতিদিন সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কে ছয়টি করে ট্রিপ দেওয়া হয়। যেদিন যাত্রীদের চাপ বেশি থাকে, সেদিন একটি বা দুটি ট্রিপ বাড়তি দেওয়া হয়। এ কারণে একটি মহল আমাদের বাস চলাচলে বাধা দিচ্ছে।

সুনামগঞ্জ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মুকিত মুকুল বলেন, মারধরের কোন ঘটনা ঘটেনি, এটি সাজানো, আমাদের কে হয়রানি করার জন্য এটি সাজানো হয়েছে। সরকারি প্রতিষ্ঠানে আমরা কেন হামলা চালাবো?

সুনামগঞ্জ সদর থানার ওসি মো. সহিদুর রহমান বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে, এ ঘটনায় এখনো মামলা দায়ের হয়নি।