প্রতীকী ছবি।

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে প্রবাসীর স্ত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত আনোয়ার হোসেন নামের একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ধর্ষণের খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে অভিযুক্তদের বাড়িতে হামলা চালায় স্থানীয়রা।

শনিবার ২২ জুন উপজেলার ঈমানেরকান্দি এলাকায় এ ঘটনা ঘটলে রোববার দুপুরে ভুক্তভোগী প্রবাসীর স্ত্রী বাদি হয়ে সোনারগাঁও থানায় একটি মামলা করেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ঈমানের কান্দি গ্রামে দেড় বছরের শিশু সন্তানকে নিয়ে ভুক্তভোগী ওই প্রবাসীর স্ত্রী তার বাবার বাড়িতে থাকতেন।

শুক্রবার রাতে গৃহবধূ তার প্রবাসী স্বামীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলতে ঘরের বাইরে যায়। এ সময় আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা একই এলাকার সামসুল হক মিয়ার ছেলে মো. সালাউদ্দিন ও সিরাজুল ইসলামের ছেলে আনোয়ার হোসেন গৃহবধূকে মুখে গামছা পেঁচিয়ে জোরপূর্বক পাশের একটি ক্ষেতে নিয়ে গিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

দীর্ঘক্ষণ অতিবাহিত হওয়ার পরও গৃহবধূ ঘরে না ফেরায় তার মা বাইরে খুঁজতে বের হয়। খোঁজার এক পর্যায়ে বাড়ির পাশে ক্ষেতের কাছাকাছি গোঙানি শুনে এগিয়ে গেলে ধর্ষণকারীরা পালিয়ে যায়। পরে গুরুতর আহত অবস্থায় ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

সোনারগাঁও থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) হেলাল উদ্দিন নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপরজনকেও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

আজকের পত্রিকা/এমএআরএস