সম্প্রতি বাংলাদেশে ঘটে যাওয়া ঘটনাগুলো মধ্যে সবচেয়ে মর্মস্পর্শী এবং বেদনাদায়ক হলো বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালযয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ড। এই হত্যাকাণ্ড পুরো বাংলাদেশকে আরও একবার রক্তাক্ত করে গেছে।

৬ অক্টোবর রবিবার আবরারকে পিটিয়ে হত্যা করে তার বিশ্ববিদ্যালয়েরই কতিপয় শিক্ষার্থীরা, যারা ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত। ৫ অক্টোবর বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে হওয়া কিছু দ্বিপাক্ষিক চুক্তির সমালোচনা করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়ায় আবরারকে নির্মমভাবে দুই দফা পিটিয়ে হত্যা করে তারই হলমেটরা।

আবরার হত্যার ৮ দিন পেরিয়ে গেলেও এ মৃত্যু যেন দগদগে ঘা হয়ে রয়েছে মানুষের মনে। তাই তো মানুষের ব্যক্তিগত, পারিবারিক এবং সামাজিক জীবনেও আবরারকে কোনো না কোনোভাবে স্মরণ করা হচ্ছে প্রতি মুহূর্ত। ১৩ অক্টোবর ছিল বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব প্রবারণা পূর্ণিমা। বৌদ্ধ ধর্মালম্বীরা এ উৎসবে ফানুস উড়িয়ে উদযাপন করে। এবারের প্রবারণা পূর্ণিমায় চট্টগ্রামের এক বৌদ্ধ মন্দিরে ফানুস উড়িয়ে প্রার্থনা করা হয় আবরারের জন্যও।

ভিন্ন ধর্মালম্বীর হলেও, আবরারের জন্য ফানুস উড়িয়ে এই প্রার্থনা করার ক্ষেত্রে ধর্ম বাধা হয়ে দাঁড়ায়নি বৌদ্ধ ধর্মালম্বীর এই মানুষদের কাছে। হয়তো এইভাবেই মনুষ্যত্বের কাছে ধর্মের বিভেদ হেরে যায়।

আজকের পত্রিকা/সিফাত