ছবি: সংগৃহীত

ভৌগোলিকভাবে বিশ্বের বৃহত্তম অরণ্য আমাজনের জঙ্গল দাউ দাউ করে জ্বলছে। পৃথিবীর ২০ শতাংশ অক্সিজেন সরবরাহ করে বলে একে পৃথিবীর ফুসফুসও বলা হয়। কিন্তু গত কয়েকদিন ধরে নিঃশব্দে পুড়ে ছাই হয়ে যাচ্ছে এই ফুসফুস। গত আট মাসে ৭২ হাজার বারেরও বেশি আগুন লেগেছে এই জঙ্গলের নানা প্রান্তে।

প্রতি মিনিটে আমাজনের ১০ হাজার বর্গমিটার এলাকা পুড়ে যাচ্ছে। এ বনভূমির ৬০ শতাংশই ব্রাজিলে অবস্থিত। ইতোমধ্যে ব্রাজিলের রোন্ডানিয়া, অ্যামাজোনাস, পারা, মাতো গ্রোসো অঞ্চলের কিছু অংশে আগুন ছড়িয়ে পড়েছে। ১৬,০০০ প্রজাতির কয়েক হাজার কোটি গাছ রয়েছে এ বনভূমিতে। শুষ্ক আবহাওয়া, তাপমাত্রা বৃদ্ধি ও বাতাসের ফলে এ আগুন ক্রমশ আরও দাবানল ছড়াচ্ছে।

আমাজন বনাঞ্চলে চলতি বছরের রেকর্ড অগ্নিকাণ্ডকে ‘আন্তর্জাতিক সংকট’ হিসেবে বর্ণনা করে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ এ বিষয়টি জি-৭ সম্মেলনের আলোচ্যসূচির শীর্ষে থাকা উচিত বলে মন্তব্য করেছেন। এক টুইটার বার্তায় তিনি লিখেছেন, ‘আমাদের ঘর জ্বলছে’।

তার এ মন্তব্যের কড়া প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইর বোলসোনেরো। ম্যাক্রোঁ ‘রাজনৈতিক সুবিধা লাভের’ জন্য আমাজনের অগ্নিকাণ্ডকে ব্যবহার করছেন বলেও তিনি অভিযোগ করেছেন, জানিয়েছে বিবিসি।

আজকের পত্রিকা/সিফাত