পায়রা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য কয়লা আমদানির চুক্তিসই। ছবি : সংগৃহীত

পটুয়াখালীর কলাপাড়া পায়রা ১ হাজার ৩২০ মেঘওয়াড তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের (প্রথম ফেজ) জন্য কয়লা আমদানির চুক্তিসই অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৮ জুন মঙ্গলবার ঢাকার একটি হোটেলে ইন্দোনেশিয়ার একটি কোম্পানির সাথে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

এতে বাংলাদেশ-চায়না পাওয়ার কোম্পানি (প্রাইভেট) লিমিটেড এর পক্ষে নর্থ-ওয়েস্ট পাওয়ার জেনারেশন কোম্পানির সচিব দীপক কুমার ডালী ও ইন্দোনেশিয়ার কোম্পানি পিটি বায়ান রিসোর্স টিবিকে এর পক্ষে কোম্পানির চেয়ারম্যান পরনোমো ইউসগিয়ান টুরো স্বাক্ষর করেন।

কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য কয়লা আমদানি সংক্রান্ত দেশের এটি প্রথম চুক্তি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিষয়ক উপদেষ্টা ড. তৌফিক-ই-ইলাহী চৌধুরী বলেন, ‘দেশের উন্নয়ন জনগণের সামনে তুলো ধরা গণমাধ্যমের অন্যতম দায়িত্ব। সরকার পরিবেশবান্ধব উন্নয়ন করছে’।

তিনি বলেন, ‘উন্নতর প্রযুক্তির জন্য কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রে কার্বন নিঃসরণ নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব। তাছাড়া বাংলাদেশে কার্বন নিঃসরণের হার খুবই কম। কয়লা থেকে বিদ্যুৎ উৎপন্ন হলে সাশ্রয়ি বিদ্যুৎ পাওয়া যাবে’।

নর্থ-ওয়েস্ট পাওয়ার জেনারেশন কোম্পানি লিমিটেড (এনডব্লিউপিজিসিএল) এবং চায়না ন্যাশনাল মেশিনারি ইমপোর্ট এন্ড এক্সপোর্ট কর্পোরেশন (সিএমসি), চায়না এর যৌথ উদোগে ২০১৪ সালের ১ অক্টোবর বাংলাদেশ-চায়না পাওয়ার কোম্পানি (প্রাইভেট) লিমিটেড গঠিত ও নিবন্ধিত হয়।

পায়রা ১ হাজার ৩২০ মেঘাওয়াট তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্পটির ১ম ইউনিট চলতি বছরের ডিসেম্বর এবং ২ ইউনিট আগামী বছর জুন এর মধ্যে উৎপাদনে আসবে বলে আশা করা যায়। এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি হবে দেশের প্রথম পরিবেশ-বান্ধব আল্ট্রা সুপারক্রিটিক্যাল প্রযুক্তিসম্পন্ন কয়লা-ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র।

একই স্থলে অভিন্ন প্রযুক্তির পায়রা ১ হাজার ৩২০ মেঘাওয়াট তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্প (২য় পর্যায়) এর কাজ বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে। কোম্পানিটি একই স্থানে ৫০ মেঘাওয়াট বায়ু চালিত প্রকল্প বাস্তবায়নের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।

অত্র বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি আমদানি-নির্ভর কয়লা দ্বারা পরিচালিত হবে এবং বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জ্বালানি হিসেবে সাব-বিটুমিনাস কয়লা ব্যবহৃত হবে, যার ক্যালরিফিক ভ্যালু ৪৭০০-৫৫০০ কিলোক্যাল। এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি চালাতে বছরে প্রায় ৪ মিলিয়ন মেট্রিক টন কয়লার প্রয়োজ হবে।

বিদ্যুৎ বিভাগের সিনিয়র সচিব ড. আহমদ কায়কাউসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূত মিসেস রীনা পি. সোয়েমারনু, বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের চেয়ারম্যান মনোয়ার ইসলাম, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজি বিষয়ক মূখ্য সমন্বয়ক মোঃ আবুল কালাম আজাদ ও বাংলাদেশ-চায়না পাওয়ার কোম্পানি লিমিটেড এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার এ.এম. খোরশেদুল আলম বক্তব্য রাখেন।
আজকের পত্রিকা/আর.বি/