আটকের বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করছেন র‌্যাব কর্মকর্তা

‘পদ্মাসেতু নির্মাণে মানুষের মাথা লাগবে’ বলে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে মো. পার্থ আল হাসানকে (১৬) আটক করেছে র‌্যাব-৮।

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) দুপুরে নিজ বাড়ি থেকে ওই কিশোরকে আটক করা হয়।

আটক পার্থ পাংশা উপজেলার পাট্টা ইউনিয়নের বৈরাট গ্রামের আব্দুর সালামের ছেলে।

সংবাদ সম্মেলনে মেজর শেখ নাজমুল আরেফিন পরাগ জানান, সম্প্রতি ‘পদ্মাসেতু নির্মাণ কাজ পরিচালনায় মানুষের মাথা লাগবে যা দেশের বিভিন্নস্থান থেকে একটি চক্র মানুষের মাথা কেটে নিয়ে যাচ্ছে’ বলে একটি ফেইসবুক আইডি থেকে গুজব রটানো হয়। যা সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপকভাবে ভাইরাল হয় এবং জনমনে ভয়ের সঞ্চার করে।

এ ঘটনার প্রেক্ষিতে র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্প গোয়েন্দা নজরদারি অব্যাহত রাখে। এরপর গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে জানতে পারে মো. পার্থ আল হাসান নামে একটি আইডি থেকে গুজব রটানো হয়।

ঘটনার সত্যতা যাচাইয়ের লক্ষে সিপিসি-২, ফরিদপুর র‌্যাব ক্যাম্পের একটি বিশেষ আভিযানিক দল রাজবাড়ী জেলার পাংশা থানার বয়রাট গ্রামে অভিযান চালায়। পরে নিজ বাড়ি থেকে কিশোর পার্থকে আটক করা হয়।

পার্থের বিরুদ্ধে পাংশা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

আটককৃত ব্যক্তির বিরুদ্ধে রাজবাড়ী জেলারপাংশা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন-২০১৮ এর ২৫/৩১ ধারায় মামলা রুজুর প্রক্রিয়া চলমান আছে।

ইয়াকুব আলী তুহিন/ফরিদপুর