ক্রিকেটারদের ধর্মঘটকে ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে দেখছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। ২১ অক্টোবর দেশের প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ডাকার প্রেক্ষিতে ২২ অক্টোবর মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিসিবি সভাপতি এমন মন্তব্য করেছেন।

মাঠে চলছে জাতীয় লিগ। জাতীয় দল ভারত সফরে যাবে আগামী মাসে। তার আগে হুট করে দেশের ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ডাকায় সংবাদ সম্মেলনে বেশ উত্তেজিত কণ্ঠেই বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘বাংলাদেশের ক্রিকেটকে অস্থিতিশীল করার চেষ্টা চলছে। ওরা এখন চায় ভারত সফরে যদি না যায় তাহলে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হবে। এটা ষড়যন্ত্রের অংশ। কিছুদিনের জন্য সময় চাচ্ছি। সবকিছু প্রকাশ করা হবে।’

বিসিবি ক্রিকেটারদের দাবি মেনে নিতে প্রস্তুত জানিয়ে বোর্ড সভাপতি বলেন, ‘এ বিষয়গুলো বললো না কেন তারা? বললে তো আমরা মেনে নেবো, তাই।’ এছাড়া এ ধর্মঘটের উদ্দেশ্য সম্পর্কে অধিকাংশ খেলোয়াড়রাই কিছু জানেন না জানিয়ে বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘বেশির ভাগ খেলোয়াড়ই জানে না আসল পরিকল্পনাটা কি। ওরা না জেনেই এসেছে। আসল পরিকল্পনা জানে দু-একজন।’ এ সময় খেলোয়াড়দের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘তোমরা না খেললে আমাদের কী করার আছে।’ এরপর তিনি বিসিবির সাম্প্রতিক কিছু কাজের উদাহরণ টেনে সাংবাদিকদের বিসিবির উন্নতির সম্পর্কে জানান।

আজকের পত্রিকা/সিফাত