নিয়োগ ও মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র শ্রমিকদের বিক্ষোভ ছবি সংগৃহীত

শ্রমিক নিয়োগের দাবিতে আবারও উত্তাল হয়ে উঠেছে দেশের একমাত্র কয়লা ভিত্তিক বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র। শ্রমিকদের বিক্ষোভ মিছিলে বহিরাগতদের হামলা ও মামলায় আরও বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেছে তারা। গত ৮ এপ্রিল বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের তৃতীয় ইউনিটের জন্য ১৫৪ শ্রমিককে স্থায়ীভাবে নিয়োগ দেওয়ার কথা ছিলো।

প্রথম ধাপে ২০ জন শ্রমিক নিয়োগ দেওয়ার কথা থাকলেও ওইদিন কর্তৃপক্ষ কোন কারণ না দেখিয়ে তা স্থগিত করে দেয়। এতে শ্রমিকরা বিক্ষোভ শুরু করে।

এদিকে ওই দিন একদল মুখোশধারী যুবক বিক্ষোভকারী শ্রমিকদের ওপর হামলা চালায় । এতে শ্রমিক ও হামলা কারীদের মধ্যে সংর্ঘর্ষে বেশ কয়েকজন শ্রমিক ও হামলাকারী আহত হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শ্রমিকদের বিরুদ্ধে ঐ হামলাকারীরা মামলা দায়ের করেন।

মামলা প্রত্যাহার ও স্থায়ী নিয়োগের দাবীতে ১৪ মে বুধবার সকালে শ্রমিকরা ভিক্ষোভ মিছিল করেন।

পরে তাপবিদুৎ কেন্দ্রের প্রধান ফটকের সামনে শ্রমিকদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহার ও নিয়োগের দাবিতে তারা মানববন্ধন করেন।

এসময় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ট্রেইউনিয়ন দিনাজপুর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক নুরুজ্জামান, বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র আন্দোলন পরিচালনা কমিটির সভাপতি হাবিবুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক আবু সাইদসহ আরো অনেকে। দাবি আদায় না হলে, রাজপথ রেলপথ অবরোধসহ কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারী জানান শ্রমিকরা।

মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিলে তাপবিদুৎকেন্দ্র ক্ষতিগ্রস্থ এলাকার প্রায় ৫ শতাধীক নারী পুরুষ অংশগ্রহন করেন।

আজকের পত্রিকা/মেহেদী হাসান উজ্জল/ফুলবাড়ী দিনাজপুর/আরকে/শায়েল